নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গ

অস্তিত্বহীন ক্লাব বানিয়ে লক্ষ লক্ষ টাকা মারার অভিযোগ তৃণমূল নেতার নামে

নদীয়াঃ হুগলীর আরামবাগে ভুয়ো ক্লাব বানিয়ে তোলা হয়েছিল লক্ষ লক্ষ টাকা। এবার নদীয়াতেও একই অভিযোগ উঠলো রাজ্য ক্রীড়া দফতরের বিরুদ্ধে। তৃণমূল (All India Trinamool Congress) নেতার বানানো দুটি ভুয়ো ক্লাব, যার কোন অস্তিত্বই নেই, সেগুলো লক্ষ লক্ষ টাকা আত্মসাৎ করেছে বলে অভিযোগ করল DYFI। তাঁরা জানিয়েছে, কালিগঞ্জের দুটি ক্লাবকে টাকা দেওয়া হয়েছে, আদতে সেই দুটি ক্লাবের কোন অস্তিত্বই নেই। আর কাকতালীয় ভাবে ওই ভুয়ো ক্লাব দুটির সভাপতি স্থানীয় তৃণমূল নেতা।

DYFI এর তরফ থেকে কালিগঙ্গের বিডিওকে অভিযোগ করে জানানো হয়েছে যে, রাধাকান্তপুর যুব সংঘ ও রাধাকান্তপুর দক্ষিণপাড়া অগ্নিবীণা সংঘ নামে দুটি ক্লাব অনুদান পেয়েছে। কিন্তু সেগুলোর কোন অস্তিত্ব নেই। এলাকাবাসী ওই ক্লাব দেখা তো দূরের কথা, কোনদিনও নামই শোনেনি। DYFI জানিয়েছেন, ক্লাব দূর অস্ত ওনামে কোনও গ্রামই নেই এলাকায়। এরপরেও ওই ক্লাব গুলোর নাম করে অনুদান নিয়েছেন তৃণমূল নেতা।

DYFI অভিযোগ করে জানিয়েছে, ২০১৬ থেকে ২০১৬ পর্যন্ত তৃণমূল নেতা এক একটি ক্লাবের জন্য চার লক্ষ করে মোট আট লক্ষ টাকা অনুদান নিয়েছেন। আরেকদিকে, ক্লাবের ঠিকানা যেই গ্রামে, সেই পানিঘাটা গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান আসুসান মণ্ডল বলেন, ২০১৮ থেকে আমি এই গ্রাম পঞ্চায়েতের পধানের দায়িত্বে আছি, কিন্তু এখনো পর্যন্ত এরকম কোন ক্লাবের নাম শুনিনি। এই ঘটনা সামনে আসার পর নদিয় জেলার তৃণমূলের সহ সভাপতি নাসিরুদ্দিন আহমেদ জানিয়েছেন, আমরা ঘটনার তদন্ত করছি।

জানিয়ে দিই, একই ঘটনা ঘটেছিল হুগলীর আরামবাগে সেখানেও এক তৃণমূল নেতা ভুয়ো ক্লাব বানিয়ে লক্ষ লক্ষ টাকা আত্মসাৎ করায় অভিযুক্ত ছিলেন। আর এবার এই ঘটনা ঘটল নদিয়ায়। আমফান দুর্নীতির রেষ এখনো কাটেনি, তাঁর আগেই আরও একটি দুর্নীতি সামনে।

Back to top button
Close