নতুন খবরভারতবর্ষ

আরিয়ানের নাম বদলে হয়ে গেল কয়দি নম্বর N956, ছেলের জন্য জেলে টাকা পাঠালেন শাহরুখ খান

মুম্বাইঃ ড্রাগস কাণ্ডে গ্রেফতার শাহরুখ খানের (Shah Rukh Khan) ছেলে আরিয়ান খান (Aryan Khan) বৃহস্পতিবার জামিন পায়নি। আগামী ৫ দিন তাঁকে জেলেই থাকতে হবে। ১৫ অক্টোবর শুক্রবার থেকে ১৯ অক্টোবর মঙ্গলবার পর্যন্ত মুম্বাইয়ের সমস্ত আদালত বন্ধ। আর এই কারণেই বাদশাহ পুত্রকে আপাতত জেলেই দশেরা কাটাতে হবে। আরিয়ান বর্তমানে আর্থার রোড জেলে বন্দি, তাঁকে এখন আর আরিয়ান নামে ডাকা হয় না। তাঁকে জেলে কয়দি নাম্বার N956 ডাকা হয়।

জেলে বন্দি অবস্থায় থাকাকালীন আরিয়ানের সঙ্গে বাকি কয়দিদের মতোই আচরণ করা হয়। আইন মোতাবেক, জেলে বন্দি আরিয়ানকে জেলের খাবারই খেতে হবে। শুধু তাই নয়, বাকি কয়দিদের মতো আরিয়ান খানকে জেলের সার্বজনীন বাথরুমও ব্যবহার করতে হবে। যদিও, জেলের খাবার খেতে পারছেন না আরিয়ান। সে বর্তমানে পারলে-জি বিস্কুট আর জল খেয়েই দিন কাটাচ্ছে।

জেলে ঢোকার সময় আরিয়ান ২৫০০ টাকা নিয়ে ঢুকেছিলেন। সেই টাকায় ১ মাসের কুপন দেওয়া হয় জেলের তরফ থেকে। সেই কুপন দিয়ে আরিয়ান ১ মাসের জন্য খাবার নিতে পারবে। তবে অত্যাধিক বোতলের বিশুদ্ধ পানীয় জল আর পারলে জি বিস্কুট খাওয়ার ফলে তাঁর সেই ২ হাজার ৫০০ টাকা ফুরিয়ে যায়। আর এবার শাহরুখ খান তাঁকে মানি অর্ডার করে টাকা পাঠিয়েছে আগামী দিনের জন্য।

জানা গিয়েছে যে, শাহরুখ খান তাঁর ছেলেকে ৪ হাজার ৫০০ টাকা মানি অর্ডার করে পাঠিয়েছে। ওই টাকা দিয়ে আগামী কয়েকদিনের জন্য আরিয়ান বোতলের জল এবং বাকি জিনিসগুলো জেল থেকে কিনতে পারবেন। আরিয়ানকে জেলে কোনও স্পেশ্যাল সুবিধা দেওয়া হয়নি। আদালতের কড়া নির্দেশের পর তাঁকে অন্যান্য কয়দিদের মতোই খাবার তথা সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। জেলের খাবারই তাঁকে খেতে হচ্ছে।

সকাল ৬টায় জেলে ঘুম থেকে উঠতে হচ্ছে আরিয়ানকে। ৭টার সময় মিলছে ব্রেকফাস্ট। ব্রেকফাস্টে শুধু চিরা দেওয়া হচ্ছে তাঁকে আর দুপুরে ও রাতের খাবারে রুটি ও ডাল-চাল দেওয়া হচ্ছে তাঁকে। জানা গিয়েছে যে, গত ১১ অক্টোবর শাহরুখ তাঁর ছেলেকে ৪,৫০০ টাকার মানি অর্ডার করেছে।

Related Articles

Back to top button