Press "Enter" to skip to content

মুসলিমদের সাথে পোকা মাকড়ের মতো ব্যাবহার করছে মোদী সরকার: বদরুদ্দীন আজমল, AIUDF নেতা।

শেয়ার করুন -

অল ইন্ডিয়া ডেমোক্র্যাটিক ফ্রন্টের (AIUDF) প্রধান এবং লোকসভার সাংসদ বদরুদ্দিন আজমল আবার একবার নাগরিকত্ব সংশোধন আইনকে (CAA) নিয়ে মোদী সরকারকে আক্রমন করেছেন। সংবাদ মাধ্যমের সাথে কথা বলার সময় সংসদ বদরুদ্দিন আজমল বলেন যে বিজেপি সরকারের আমলে মুসলিম সম্প্রদায়কে ভারতীয় নাগরিক হিসাবে মনে করা হচ্ছে না। আজমল কদিন আগেই CAA এর বিরুদ্ধে প্রদর্শন করার সময় ইউপি তে হওয়া পুলিশ এনকাউন্টারের কথা উল্লেখ করে বলেন যে উত্তরপ্রদেশ সহ দেশের আরও বেশ কয়েকটি অংশের হিংসার মামলার দিকেই নজর দিয়ে দেখে নিন। পুলিশকে গুলি চালানোর নির্দেশ দেওয়া হয় এবং পরে তাদের জিজ্ঞাসাবাদও করা হয় না, বরং এটির জন্য তাদের প্রশংসিত করা হয়।

নাগরিকত্ব সংশোধন আইনকে নিয়ে বদরুদ্দিন বিজেপি সরকারকে আক্রমন করে বলেন, কেন্দ্রের বিজেপি এবং মোদী সরকার দেশের মানুষের দাবি শুনতেই চায় না। তারা মুসলমানদের সাথে পোকামাকড়ের মতো আচরণ করছে, তারা মনে করছে যে তাদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা রয়েছে সুতরাং তারা যা ইচ্ছা করতে পারে। তবে এটি একটি ভুল ধারণা, আজ সরকার আছে কাল আর থাকবে না।

বদরুদ্দিন আজমল বলেন, “নরেন্দ্র মোদী কি ভেবেছিল যে কাশ্মীর থেকে ধারা ৩৭০ অপসারণ করে তারপর নাগরিকত্ব আইন লাগু করে সকলকে বাইরের লোক প্রমাণ করে দেবে। তবে এই সব বেশিদিন চলবে না।” আজমল বলেন, মোদী খুব শীঘ্রই নিজের জালে ফেঁসে যাবে। পুরো বিশ্বজুড়ে মোদীর সমালোচনা হচ্ছে। সরকারের উচিত নীতিগুলিকে পূর্নবিবেচনা করে লাগু করা।

বিক্ষোভের কথা উল্লেখ করে বদরুদ্দিন আজমল বলেন, “আজ পুরো দেশ পুড়ে যাচ্ছে। তারা পুলিশ লাঠির সহায়তায় জনগণের কণ্ঠকে দমন করতে চায়। দমনমূলক নীতির কারণে ব্রিটিশ সরকারকেও দেশের বাইরের পথ দেখানো হয়েছিল। বর্তমানে যদি পরিস্থিতি একই রকম থাকে তবে তাদের ভাবতে হবে যে ক্ষমতা সর্বদা তাদের দাস হয়ে থাকবে না।