Press "Enter" to skip to content

‘আমাদের পাশে দাঁড়ান’- সোশ্যাল মিডিয়ায় হিন্দুদের কাছে সমর্থন চাইল বাংলাদেশের সনাতনীরা

শেয়ার করুন -

আপনি যদি হিন্দু হন এবং হিন্দু বহুল এলকায় বসবাস করেন তাহলে অবশ্যই আপনি সৌভাগ্যবান। কারণ হিন্দু বহুল এলকায় থাকা হিন্দু বাংলাদেশ, পাকিস্তানে সনাতনীদের উপর হওয়া অ’ত্যাচার সম্পর্কে শুনলেও সেই অনুভূতিও সঠিকভাবে তাদের মনে ধরে না। হিন্দু বহুল এলকায় থাকা সনাতনীদের জীবন এবং বাংলাদেশ, পাকিস্তানে থাকা সনাতনীদের জীবনের পার্থক্য প্রায় স্বর্গ-ন’রকের পার্থক্যের মতো। হিন্দুরা যতদিন হিন্দু বহুল এলাকায় থাকে ততদিন নিশ্চিন্তে থাকে। তবে ইতিহাস থেকে শিক্ষা নিয়ে এবার সম্ভবত ঋষি অরবিন্দের কথা মতো হিন্দুদের সামান্য আত্মমন্থন করার প্রয়োজন রয়েছে তথা স্বজাতির জন্য আওয়াজ তোলার প্রয়োজন রয়েছে।

আর তা নাহলে নিজেদের উপর বিপদ এসে উপস্থিত হলে সাহায্যের আশা করাও উচিত না। রবিবার দিন বাংলাদেশের কুমিল্লায় এক ফেসবুক পোস্টের বাহান দিয়ে হিন্দুদের উপর আ’ক্রমণ করা হয়েছে। বাংলাদেশের কট্টরপন্থীরা এই আ’ক্রমন করেছে। সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। বাংলাদেশের অনেক ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করে হিন্দুদের সমর্থন চেয়েছেন। বাংলাদেশের এক সনাতন ধর্মালম্বী নেটিজন হিন্দুদের উপর হা’মলার ভিডিও শেয়ার করে লিখেছেন- প্রিয় হিন্দুরা আমরা কখনো টাকা চাইনি, আমরা আপনাদের থেকে সর্মথন চাইছি। একইভাবে কিছু ফেসবুক গ্রুপেও বাংলাদেশের হিন্দুরা সমর্থন চেয়ে পোস্ট করেছেন। তবে দুঃখের বিষয় এই যে, সুদূর আমেরিকায় কোনো কৃষ্ণাঙ্গ ব্যাক্তিকে মারা হলে রাজনৈতিক ফায়দা তুলতে কলকাতায় অনেকজনকে মিছিল করতে দেখা যায়। তবে স্বজাতির বিরুদ্ধে অত্যাচারের বিরুদ্ধে মিটিং কখনোই চোখে পড়ে না।

বাংলাদেশের দুই হিন্দু ব্যাক্তি ফ্রান্সের সমর্থন করে ফেসবুকে মন্তব্য করেছিললেন- এই অভিযোগ তুলে উ’ন্মাদীরা হিন্দুদের ঘর বাড়ি ভাঙচুর করে। কুমিল্লার মুরাদনগরে কোরবানপুরে এই ঘটনা ঘটেছে বলে জানা যাচ্ছে। ক’ট্টরপন্থীরা হিন্দুদের ৪-৬ টি বাড়িকে ভাঙচুর করে জ্বা’লিয়ে দিয়েছে বলে জানা গেছে।

প্রসঙ্গত, বাংলাদেশে নানা অজুহাতে হিন্দুদের উপর আ’ক্রমণ করা অতি সাধারণ ঘটনায় পরিণত হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেকে এও অভিযোগ তুলেছেন যে নানা মেধাবী ছাত্র ছাত্রীর বিরুদ্ধে ধৰ্ম অ’বমাননার গুজব ছড়িয়ে তাদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কার করার অভিযান শুরু করেছে ক’ট্টরপন্থীরা। এই প্রসঙ্গে একটা তাজা ঘটনা সামনে এসেছে। যেখানে তিথি সরকার নামের এক ছাত্রীর বিরুদ্ধে ইসলাম ধৰ্ম অবমাননার অভিযোগ তুলে তাকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। এমনকি তিথি সরকার ৭ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছে বলেও সূত্রের খবর।