Press "Enter" to skip to content

রাজ্যে বিজেপির মোট প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা ২ কোটির বেশি, আসন কম হলেও পদ্মে ভরসা বাঙালীদের

শেয়ার করুন -

কলকাতাঃ রাজ্যে বিধানসভার নির্বাচন শেষ, গণনাও শেষ। জয়ী দলও ঘোষণা হয়ে গিয়েছে। ২৯২ আসনের মধ্যে তৃণমূল কংগ্রেস পেয়েছে ২১৩টি, বিজেপি পেয়েছে ৭৮টি আর সংযুক্ত মোর্চা সমর্থিত আইএসএফ প্রার্থী পেয়েছে একটি আসন। তবে স্বাধীন ভারতে এই প্রথম বাংলায় কংগ্রেস আর সিপিএমের ঝুলি একেবারে শূন্য। একুশের নির্বাচনে সিপিএমের প্রাপ্ত ভোটের হার অস্বাভাবিক ভাবে কমে দাঁড়িয়েছে ৪.৭৩ শতাংশ। এছাড়াও এবার সিপিএমের শতাধিক প্রার্থীর জমানত বাজেয়াপ্ত হয়েছে।

একুশের এই মহারণে তৃণমূল নিজেদের ধারাবাহিকতা বজায় রেখেছে। পরপর তিনবার জিতে হ্যাট্রিক করেছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বাধীন তৃণমূল কংগ্রেস। রাজ্যে তাঁদের মোট প্রাপ্ত ভোটের সংখ্যা হল ২ কোটি ৮৭ লক্ষ ৩৫ হাজার ৪২০। শতাংশের নিরিখে মোট ৪৭.৯৪ শতাংশ ভোট পেয়েছে তৃণমূল।

বাংলায় দুশো আসন নিয়ে ক্ষমতায় আসার দাবি করা বিজেপি ১০০-র গণ্ডিও পার করতে পারেনি। তবে তাঁরা এই প্রথমবার বাংলায় এতগুলি আসন পেল। গোটা বাংলায় বিজেপিকে ভোট দিয়েছে ২ কোটি ২৮ লক্ষ ৫০ হাজার ৭১০ জন মানুষ। তৃণমূলের থেকে বিজেপি ৫৮ লক্ষ ৫৪ হাজার ৭১০টি ভোট কম পেয়েছে। শতাংশের নিরিখে ৩৮.১৩ শতাংশ ভোট পেয়েছে গেরুয়া শিবির।

আরেকদিকে ৩৪ বছর বাংলায় রাজত্ব করা সিপিএম এবার একটিও আসন পায়নি। একুশের নির্বাচনে সিপিএম আর ফরওয়ার্ড ব্লক মিলে ২৮ লক্ষ ৩৭ হাজার ২৩৬টি ভোট পেয়েছে। দুই দল শতাংশের নিরিখে ৫.২৬ শতাংশ ভোট পেয়েছে। সিপিএমের শরিক দল কংগ্রেস ১৭ লক্ষ ৫৭ হাজার ১৩১টি ভোট পেয়েছে। শতাংশের নিরিখে তাঁরা ২.৯৩ শতাংশ ভোট পেয়েছে।

আরেকদিকে নোটায় এবার ভোট পড়েছে ৪৬ হাজার ৮২৭টি। শতাংশের নিরিখে ১.১ শতাংশ ভোট পড়েছে নোটায়।