নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গ

রাজনীতির চাণক্য অমিত শাহ’র অনুমান চিরকালই ১০০% সঠিক হয়, প্রমাণ দিল বিজেপি

আজ দিল্লীতে একটি সাংবাদিক বৈঠক করেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। আর সেই বৈঠকে তিনি দাবি করেন যে, পশ্চিমবঙ্গে প্রথম দফার নির্বাচনের ৩০ আসনের মধ্যে ২৬টি জিতবে বিজেপি। অমিত শাহ বলেন, বাংলায় তোষণ ও অনুপ্রবেশের রাজনীতি চরমে। রাজ্যে চলছে দুর্নীতির রাজনীতি। শাসক দল পাল্টেছে, বাংলার ভাগ্য একই রয়েছে।বাংলার উন্নতি সম্ভব, এই স্বপ্ন বিজেপি দেখিয়েছে।

এরপর প্রথম দফা ভোট গ্রহণ নিয়ে সন্তুষ্টি প্রকাশ করে শাহ বলেন, ‘বাংলায় শান্তিপূর্ণ ভোট করাতে সফল নির্বাচন কমিশন। এজন্য আমি নির্বাচন কমিশনকে ধন্যবাদ দেব। বোমা-গুলি মৃত্যু ছাড়া হয়েছে প্রথম দফার নির্বাচন।” আমিত শাহ এদিন দাবি করেন, ‘প্রথম দফা নির্বাচনে ৩০টির মধ্যে আমরা ২৬টি আসন জিতব। এমনকি বড় ব্যবধানে এই সব কেন্দ্রে জিতব বলেও যানান তিনি। পশ্চিমবঙ্গের ভোট হয়েছে শান্তিপূর্ণ।” তিনি বলেন, বেশি ভোট পড়া বিজেপির পক্ষে শুভ সঙ্কেত।

এবার অমিত শাহের এই দাবিকে সত্য প্রমাণ করতে আসরে নামল বঙ্গ বিজেপি। গেরুয়া শিবিরের পক্ষ থেকে অমিত শাহের দাবি নিয়ে একের পর এক টুইট করা হয়। যেখানে দেখানো হয়, এর আগে তিনি যা অনুমান করেছিলেন, বিজেপি সেই আসনই জিতেছে। আর ওনার অনুমান প্রমাণ করতে ২০১৭-এর উত্তর প্রদেশের বিধানসভা নির্বাচনের প্রসঙ্গ টেনে আনে গেরুয়া শিবির।

বিজেপি একটি ভিডিও টুইট করে। সেই ভিডিওতে অমিত শাহকে ২০১৭-এর উত্তর প্রদেশের প্রথম দফার নির্বাচন নিয়ে অনুমান করতে দেখা যাচ্ছে। অমিত শাহ একটি সাংবাদিক বৈঠক করে বলেছিলেন প্রথম দফার নির্বাচনে বিজেপি ৫০-এর বেশি আসন পাবে। ফল ঘোষণার পর দেখা গিয়েছিল যে, বিজেপি ৬০টি আসন পেয়েছে।

এছাড়াও বিজেপি আরও একটি টুইট করে জানায় যে, উত্তর প্রদেশের প্রথম দুই দফার নির্বাচনে অমিত শাহ অনুমান করেছিলেন যে বিজেপি ১৩৫টির মধ্যে ৯০টি আসন জিতবে। ফলাফল ঘোষণার পর দেখা যায় যে, বিজেপি প্রথম দুই দফায় ১১৫টি আসন জিতেছিল।

এছাড়াও, বঙ্গে ২০১৯-এর লোকসভা নির্বাচনে অমিত শাহ দাবি করেছিলেন যে বিজেপি ২০টি আসনে জিতবে। সেবারও ওনার অনুমান প্রায় ঠিক হয়েছিল। ২০১৯-এর নির্বাচনে বিজেপি সেবার ১৮টি লোকসভার আসন জিতেছিল। আর পশ্চিমবঙ্গে সেটাই ছিল বিজেপির সবথেকে বড় জয়।

Related Articles

Back to top button