Press "Enter" to skip to content

কলকাতা শহরে বুকে মিললো বোমা তৈরির কারখানা! গ্রেফতার শেখ শাহজাদা, বাকি অভিযুক্তরা পলাতক।

শেয়ার করুন -

হিংসা, সন্ত্রাস ও কট্টরপন্থীদের উপদ্রবে কুখ্যাত হয়ে উঠেছে পশ্চিমবঙ্গ (West Bengal)। পশ্চিমবঙ্গের রাজধানী শহর ও দেশের একটা বড়ো শহর হয়েও কট্টরপন্থীদের বাড় বাড়ন্ত থেকে রক্ষা পায়নি কলকাতা (Kolkata)। উল্টে কলকাতা শহরেই এখন উপদ্রবী সংখ্যা সবথেকে বেশি বললে ভুল হবে না। খাস কলকাতা শহর থেকে একটা বড়ো খবর সামনে এসেছে যা বেশিরভাগ সংবাদ মাধ্যম গুরুত্বহীনভাবে পরিবেশন করেছে। মিডিয়া বিষয়টির উপর নিষ্ক্রিয়তা দেখালেও খবর খুবই চাঞ্চল্যকর। আসলে কলকাতা বুকেই বোমা তৈরির কারখানার সন্ধান মিলেছে। শুক্রবার দিন পুলিশ ওই বোমা তৈরির কারখানার সন্ধান পেয়েছে এবং এক অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেছে। বাকি অপরাধীরা পলায়ন করেছে।

মূলত কলকাতা শহরেই বেশিরভাগ বুদ্ধিজীবী ও এলিট সমাজের বাস বলে ধারণা করা হয়। আর এমন শহরে বোমা তৈরির কারখানার সন্ধান মেলা কোনোভাবেই ছোটো ঘটনা হতে পারে না। কলকাতার বুকে একবালপুরে (Ekbalpur) একটা পুরো বাড়িকে বোমা তৈরির কারখানা বানিয়ে সঞ্চালন করতো শেখ শাহজাদা ও তার সাথীরা। জানিয়ে দি, একবালপুর কলকাতার খিদিরপুর (Khidirpur) এলাকার মধ্যে পড়ে। পুলিশ শেখ শাহজাদাকে গ্রেফতার করলেও বাকিদের গ্রেফতার সম্ভব হয়নি। পুলিশ বাকি অভিযুক্তদের গ্রেফতারের প্রয়াস করছে।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, পুলিশ শুক্রবারদিন চুপিসাড়ে কলকাতার ওই বোমা তৈরির কারখানায় হানা দেয়। দক্ষিণ বন্দর থানার পুলিশ এই অভিযান চালিয়েছে বলে জানা গেছে। পুলিশ যখন বোমা তৈরির কারখানায় হানা দেয় তখন বোমা তৈরির নানা সরঞ্জাম ছড়িয়ে ছিটিয়ে ছিল। পুলিশ পরিকল্পনাভাবে বোমা তৈরির কারখানায় উপস্থিত থাকা শেখ শাহজাদাকে গ্রেফতার করে।

তবে বোমা তৈরি কি কারণে হচ্ছিল বা এর সাথে আতঙ্কবাদের সম্পর্ক আছে কিনা তা সম্পর্কে কিছুই জানা যায়নি। পশ্চিমবঙ্গে নির্বাচন হলে বোমা বাজি একটা সাধারণ ঘটনা। তাই লুঙ্গি বাহিনীর অস্ত্র হিসেবে বোমা তৈরি হচ্ছিল কিনা তা নিয়েও প্রশ্নঃ উঠেছে।