Press "Enter" to skip to content

অযোধ্যায় হতে দেব না রাম মন্দির, শুরু করবো আন্দোলন: চন্দ্রশেখর রাবণ

শেয়ার করুন -

দেশে কিছু উন্মাদী ব্যাক্তি রয়েছে যারা সমস্যার সমাধানের পরিবর্তে রাজনীতি করার উদ্যেশে তা বাড়িয়ে তুলতে পছন্দ করেন। বহু দশক ধরে বিতর্কে জড়িয়ে থাকা অযোধ্যা রাম মন্দির মামলার সমাধান সম্ভব হয়েছে। যার কারণে দেশ বহুধাপ এগিয়ে গেছে। তবে দেশকে পেছনে টানার জন্য এখন ভীম আর্মির নেতা চন্দ্রশেখর আজাদ রাবণ মাঠে নেমে পড়েছেন। ভীম আর্মির নেতা রাম মন্দির নির্মাণ আটকনোর ঘোষণা করেছেন।

ভীম আর্মির নেতা চন্দ্রশেখর আজাদ রাবণ বলেছেন আমরা অযোধ্যাতে রামমন্দির নির্মাণ করতে দেব না। সম্প্রতি হিন্দু সমাজ সমস্ত প্রমাণের ভিত্তিতে সুপ্রীম কোর্টে অযোধ্যা মামলায় জয়লাভ করেছিল যার পরে অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের সিদ্ধান্ত করা হয় এবং মসজিদ নির্মাণের জন্য আলাদা জায়গায় জমি প্ৰদান করা হয়।

জানিয়ে দি, বাবরি মসজিদের আগে সেখানে মন্দির ছিল কিন্তু আতঙ্কবাদী মুঘলরা এসে সেখানে মন্দির ভেঙে মসজিদ বানিয়ে দেয়। এখন বহু বছর আদালতে মামলা লড়াই করে হিন্দুরা জয়লাভ করেছে। একইসাথে মন্দির নির্মাণের কাজও শুরু হয়েছে।

তবে নিজেদের দলিত হিতৈষী বলা ভীম আর্মির নেতা বলেছেন, আমরা রাম মন্দির নির্মাণ আটকে দেব। সম্প্রতি খোদাই কার্যের ফলে সেখানে বহু অবশেষ পাওয়া গেছে। সেগুলি সমস্ত রাম মন্দিরের অংশ বলে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছেন তবে ভীম আর্মির নেতা বলেছেন, এগুলো বৌদ্ধ স্থলের অবশেষ। রাম মন্দিরের এলাকাকে বৌদ্ধ স্থল দাবি করে আন্দোলন করার হুমকিও দিয়েছেন চন্দ্রশেখর আজাদ রাবণ। সবমিলিয়ে রাম মন্দির নির্মাণ আটকাতে নতুন ষড়যন্ত্র শুরু হয়ে গেছে তা নিয়ে কোনো সন্দেহ নেই।