নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গ

যত দোষ দিলীপ ঘোষ? মুখ্যমন্ত্রী আর শিক্ষামন্ত্রী করলে সব মাফ!

কলকাতাঃ শনিবার স্বাধীনতা দিবসে জুতো পরে জাতীয় পতাকা তুলে বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দু হয়ে ওঠেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ (Dilip Ghosh)। শুধু তাই নয়, পতাকা তোলার পর স্বাধীন ভারত অমর রহে বলে স্লোগানও দেন তিনি। এর আগে তিনি প্রধানমন্ত্রী অমর রহে বলে স্লোগান দিয়ে হাসির পাত্র হয়ে উঠেছিলেন। জুতো পরে পতাকা তোলার জন্য দিলীপ ঘোষকে অনেক সমালোচনার মুখে পরতে হয়।

প্রসঙ্গত, বিগত এক সপ্তাহ ধরে উত্তর বঙ্গ সফরে রয়েছেন বিজেপির সাংসদ দিলীপ ঘোষ। আর তিনি লাটাগুড়িতে একটি রিসর্টে দিন কাটাচ্ছিলেন। ওই রিসর্টের পাশেই তিনি জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন। আর পতাকা তোলার সময় পায়ে জুতো থাকার দরুন তীব্র সমালোচনার মুখে পরতে হয় ওনাকে। কিন্তু দিলীপ ঘোষ একাই না, এই একই কাজ করেছেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী (Mamata Banerjee) এবং শিক্ষা মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় (Partha Chatterjee)।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ছবি ভাইরাল হচ্ছে, যেখানে দেখা যাচ্ছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী জুতো পরে পতাকা তুলছেন। এটি এবছরের স্বাধীনতা দিবসেরই ছবি। কারণ ওনার এবং ওনার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা দেহরক্ষীদের মুখে মাস্ক ছিল। আর করোনার কারণেই এখন সবাই মুখে মাস্ক পরছেন। গত বছর উনি মাস্ক ছাড়াই পতাকা তুলেছিলেন।

আরেকদিকে, রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চ্যাটার্জীকেও সেই একই ভাবে জুতো পরে পতাকা তুলতে দেখা যাচ্ছে। ওনার মুখে মাস্ক এবং হাতে গ্লভসও রয়েছে। দুটো ছবিই সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড়ের গতিতে ভাইরাল হচ্ছে। আর এর সাথে সাথে দিলীপ ঘোষেরও জুতো পরে পতাকা তোলার ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হচ্ছে। একদিকে দিলীপ বাবু যখন এই কাজের জন্য তিরস্কৃত হচ্ছেন, তখন রাজ্যের শিক্ষা এবং মুখমন্ত্রীকে নিয়ে তেমন কোন প্রতিবাদ দেখা যাচ্ছে না। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া ওই ছবির সত্যতা আমাদের পক্ষে যাচাই করা সম্ভব হয় নি।

Back to top button
Close