নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গ

সত্য প্রকাশ করায় Calcutta News চ্যানেল ষড়যন্ত্রের শিকার! অভিযোগের তীর শাসনতন্ত্রের দিকে

সংবাদমাধ্যম হল গণতন্ত্রের সদা-জাগ্রত প্রহরী। গণদেবতার বিচারশালায় সে নিপীড়িত মানুষের পক্ষে সমর্থন করে। গনতন্ত্রের মর্যাদা ধূলিলুণ্ঠিত হলে সংবাদমাধ্যমের নির্ভীক কন্ঠ সেখানে সোচ্চার হয়। তাই সংবাদমাধ্যম জনগনের পবিত্র গণতান্ত্রিক অধিকার-সংরক্ষণের সর্বদা দায়িত্বশীল অভিভাবক।

তবে যদি সংবাদমাধ্যমের কন্ঠ রুদ্ধ করা হয়, যদি সংবাদ মাধ্যম লাঞ্ছিত নিপীড়িত মানবতার মূঢ়, মূক, মুখে ভাষা যোগাতে ব্যার্থ হয় তাহলে আধুনিক পৃথিবীর নিঃসহায় মানুষ বিচারের প্রার্থনায় কার দ্বারে গিয়ে দাঁড়াবে? সম্প্রতি এমন প্রশ্নঃ উঠতে শুরু হয়েছে বাংলা জুড়ে।

আসলে পশ্চিমবঙ্গে লাগাতার সংবাদমাধ্যমের কণ্ঠরোধের অভিযোগ উঠছে। প্রথমে আরামবাগ টিভি আর এখন Calcutta News কে দমিয়ে রাখার চেষ্টা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠছে।

কিছু MOS তে Calcutta News এর সম্প্রসারণকে বন্ধ করে দেওয়া বলে জানা যাচ্ছে। সরকারের বিরুদ্ধে প্রশ্নঃ তোলায় এমন প্রতিহিংসার ষড়যন্ত্র শাসক দল বা শাসনতন্ত্রের ইশারায় হয়েছে বলে দাবি করা হচ্ছে।

তবে ষড়যন্ত্রের শিকার হওয়া সত্ত্বেও প্রবল জনসমর্থনের কারণে Calcutta News এর জনপ্রিয়তা আরো তীব্রভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। যা ষড়যন্ত্রকারীদের জন্য কড়া জবাব দিয়েছে। তবে সমস্তকিছুর মধ্যে প্রশ্ন উঠছে যে কবে সংবাদমাধ্যমগুলি এমন গণতন্ত্রবিরোধী ষড়যন্ত্রের থেকে মুক্ত পাবে, কবে এই সর্বনাশের রাহুমুক্ত হবে?

Related Articles

Back to top button