নতুন খবরভারতবর্ষ

সুখবর দিল DRDO, চীনের দাদাগিরি বন্ধ করার জন্য প্রস্তুত নয়া হাতিয়ার

আজকের দিনে দাঁড়িয়ে চীন ভারতের জন্য বড়ো বিপদ হয়ে উঠেছে। আর তাই চীনকে টক্কর দিতে ভারত লাগাতার কাজ করছে। এই পরিপ্রেক্ষিতে ভারতের DRDO সু-খবর দিয়েছে। DRDO জানিয়েছে, মাঝ আকাশে অবস্থানকারী যেকোনও লক্ষ্যবস্তুকে ভেদ করতে সক্ষম আকাশ মিসাইলের নবতম সংস্করণের সফল টেস্টিং সম্পন্ন হয়েছে। ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের হাতে তৈরি আকাশ মিসাইলের নবতম সংস্করণ ‘আকাশ প্রাইম’।

এই মিসাইলটি মাঝ আকাশে থাকাকালীন যেকোনও টার্গেটকে ধ্বংস করে দিতে পারে। গত জুলাই মাসেও একখানি আকাশ মিসাইল পরীক্ষায় সফলতা অর্জন করেছে ভারত। স্থলসেনা ও বায়ুসেনার জন্য অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে প্রাইম মিসাইলের পুরোনো সংস্করণটিকে। ব্রহ্মসের মতো এটিও একটি সুপারসনিক মিসাইল। মূলত চীনের কথা মাথায় রেখেই এই মিসাইল নির্মান করা হয়েছে।

এদিন পরীক্ষার সময় মাঝ আকাশে একটি লক্ষ্যবস্তুকে স্থির করা হয়েছিল মিসাইলটির জন্য। আকাশ প্রাইম সেই লক্ষ্যবস্তু ভেদ করে নির্ভুলভাবে। সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তিতে তৈরি অ্যাকটিভ রেডিও ফ্রিকোয়েন্সি যুক্ত রয়েছে এই মিসাইলে। আকাশ মিলাইলের অন্যান্য সংস্করণে অ্যাকটিভ রেডিও প্রযুক্তি নেই। ডিআরডিও-র পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যে, কম তাপমাত্রায় ও সুউচ্চতায় অনায়াসে কাজ করতে পারে আকাশ প্রাইম।

আকাশ প্রাইম মিসাইলের সফল উৎক্ষেপণের জন্য ডিআরডিও-র সেক্রেটারি জি সতীশ রেড্ডি ও সংস্থার চেয়ারম্যান ও গবেষক টিমকে বিশেষ শুভেচ্ছা জানিয়েছেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বেশকিছুদিন আগে ক্যাবিনেট বৈঠকে ‘আকাশ’ মিসাইলের প্রযুক্তি রফতানি করার ক্ষেত্রে শিলমোহর দেওয়া হয়েছে।

২০২৫ সাল পর্যন্ত অস্ত্র রপ্তানির মাধ্যমে ৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার আয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে সরকার।এখনও অবধি প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে শুধুমাত্র যন্ত্রপাতি রপ্তানি করে ভারত। কিন্তু এবার আকাশ মিসাইল রপ্তানিতে গ্রীন সিগন্যাল দিয়েছে কেন্দ্র। চীনকে নজরে রেখে ভিয়েতনাম ও ইন্দোনেশিয়াকে আকাশ এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম দেওয়ার পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে ভারত।

Related Articles

Back to top button