নতুন খবরভারতবর্ষ

মুসলিম শিল্পপতি আজিম প্রেমজি দান করেনি ৫০ হাজার কোটি টাকা! সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়ানো হচ্ছে ভুয়ো খবর

করোনা ভাইরাসের আক্রমনের দরুন দেশ কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে এবং সকলে নিজের নিজের মতো করে দেশসেবার চেষ্টা চালাচ্ছে। করোনা ভাইরাস থেকে দেশকে বাঁচাতে সরকার দেশজুড়ে লকডাউন ঘোষণা করেছে। দেশের অনেক ব্যাবসায়ী, অভিনেতা আর্থিকভাবে দেশকে সাহায্যের জন্য এগিয়ে এসেছে। করোনা ভাইরাসের প্রকোপের এই দুঃসময়ে সরকার থেকে কড়া নির্দেশ দেওয়া হয়েছে কেও যেন ভুয়ো খবর পরিবেশন না করে এবং সকলে যেন এবিষয়ে সচেতন থাকে।

জানিয়ে দি, করোনা ভাইরাস নিয়ে ভুয়ো খবর ছড়িয়ে পড়ায় ইরানে ৩০০ জন ব্যাক্তির প্রাণ গেছে। এক বিশেষ দ্রব্য খেলে করোনা ঠিক হয়ে যায় বলে ইরানে রটিয়ে দেওয়া হয়েছিল। সেই ভুয়ো খবরে বিশ্বাস করে ৩০০ জন প্রাণ হারিয়েছিল। তবে করোনা নিয়ে ভুয়ো খবর যে শুধু ইরানে ছড়াচ্ছে তা নয়।

ভারতেও বহুরকম ভুয়ো খবর ছড়িয়ে পড়ছে।এখন করোনা ভাইরাসের সাথে লড়াইতে বহু মানুষ আর্থিক সাহায্য দান করছে। আর এই নিয়েই ভারতে ভুয়ো খবরের ভান্ডার তৈরি হয়েছে। একদিন সবথেকে বেশি যে ভুয়ো খবর সোশ্যাল মিডিয়ায় দেখা যাচ্ছে তা হল সংক্রান্ত।

প্রথমত জানিয়ে দি, আজিম হাশিম প্রেমজী সংস্থার এর চীফ তথা চেয়ারপার্সন। ইনি দানশীলতার জন্যেও দেশজুড়ে বেশ খ্যাত।বলা হচ্ছে আজিম হাশিম প্রেমজী করোনা ভাইরাসের সাথে লড়াইতে ৫০ হাজার কোটি টাকা আর্থিক সাহায্য করেছেন।

অভিযোগ কিছু মিডিয়া হাউস পর্যন্ত খবরকে সত্য মনে করে প্রকাশিত করেছে। কিছু কিছু লোকজন ওয়েবসাইটের লিংক পোস্ট করে বলেছেন এখন হিন্দু কোটিপতিরা কোথায়, ইত্যাদি ইত্যাদি। যদিও আজিম হাশিম প্রেমজী ৫০ হাজার কোটি টাকা দান করেছেন এটার কোনো সত্যতা নেই।

এমনকি উনার কোম্পানিকে এই বিষয়ে জিজ্ঞাসা করা হলে তারাও জানিয়েছেন যে এরকম কোনো কিছু ঘটেনি।প্রসঙ্গত জানিয়ে দি, এখনও অবধি শিল্পপতিদের মধ্যে রতন টাটা দানের দিক থেকে সবথেকে বেশি অর্থ দান করেছেন। রতন টাটার কোম্পানি করোনা মহামারির সাথে লড়াইতে ৫০০ কোটি টাকা প্রদান করেছেন।

Back to top button
Close