Press "Enter" to skip to content

‘আল্লাহু আকবর” স্লোগান দিয়ে আবারও খুন ফ্রান্সে, এবার গলা কেটে হত্যা করা হল মহিলা পুলিশকর্মীকে

শেয়ার করুন -

নয়া দিল্লীঃ ফ্রান্সে এক মহিলা পুলিশ অফিসারের গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে। এই ঘটনা ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিস থেকে ৫৬ কিমি দূরে ঘটেছে। ৪৯ বছরের ওই মহিলা অফিসারের গলায় দুবার ধারালো অস্ত্র দিয়ে হামলা করা হয়েছে।

ফ্রান্সের রাষ্ট্রপতি মৃত পুলিশ অফিসারের নাম স্টেফনি বলে জানিয়েছেন। স্টেফনির ১৩ আর ১৮ বছরের দুটি কন্যা সন্তান আছে। জানা গিয়েছে, ৩৬ বছর বয়সী হামলাকারী তিউনিসিয়ার বাসিন্দা। পুলিশ সুত্র অনুযায়ী, ২০০৯ সালে সে বেআইনি ভাবে ফ্রান্সে ঢুকেছিল। যদিও তাঁর কোনও রেকর্ড নেই পুলিশের কাছে। হামলার পর পুলিশের ফায়ারিংয়ে আহত হয়েছে হামলাকারী। এরপর হাসপাতালে চিকিৎসা চলাকালীন তাঁর মৃত্যু হয়। বিবিসির সুত্র অনুযায়ী, হামলাকারী ‘আল্লাহু আকবর” স্লোগান দিয়ে হামলা করেছিল।

ফ্রান্সের রাষ্ট্রপতি এই হামলাকে জঙ্গি হামলা বলে আখ্যা দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, ফ্রান্স ইসলামিক সন্ত্রাসবাদীদের সামনে আত্মসমর্পণ করবে না। এবার এই সমস্যাকে আরও কড়া হাতে দমন করা হবে। ফ্রান্সের প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, এই ধরণের ঘটনা ঘটিয়ে আমাদের হারানো যাবে না। আমরা এদের সঙ্গে লড়াই করার জন্য প্রস্তুত।

রিপোর্ট অনুযায়ী, মৃত মহিলা প্রশাসনিক কর্মকর্তা ছিলেন। লাঞ্চ ব্রেক সেরে কাজে ফেরার সময় ওনার উপর হামলা হয়। প্রত্যক্ষদর্শীদের অনুযায়ী, হামলাকারী পুলিশ স্টেশনের বাইরে মোবাইলে কথা বলছিল, মহিলা অফিসার বাইরে আসার অপেক্ষা করছিল সে।

উল্লেখ্য, ফ্রান্সে এরকম হামলা নতুন কিছু নয়। এর আগেও একাধিকবার ফ্রান্সে এমন হামলা হয়েছে। এমনকি পয়গম্বরের কার্টুন দেখানোর জন্য এক শিক্ষককেও গলা কেটে খুন করা হয়েছে ফ্রান্সে।