অপরাধনতুন খবরভারতবর্ষ

সোশ্যাল মিডিয়ায় নবীকে অপমান করায় হিন্দু যুবককে গুলি করে খুন! গ্রেফতার দুই মৌলবি

নয়া দিল্লিঃ গুজরাট অ্যান্টি টেররিস্ট স্কোয়াড (ATS) রাজ্যের ধুন্ধুকা শহরে এক ব্যক্তিকে হত্যার অভিযোগে দিল্লি থেকে একজন মৌলবিকে গ্রেপ্তার করেছে। পুলিশ জানিয়েছে, ফেসবুকে একটি আপত্তিকর পোস্টের কারণে গুজরাটের ধুন্ধুকা শহরে কিষাণ ভারওয়াদ নামে এক ব্যক্তিকে হত্যা করা হয়েছে। ২৫ জানুয়ারি ধুন্ধুকার মোধওয়াদা এলাকায় দুই আততায়ীর গুলিতে কিষাণ ভারওয়াদ নিহত হয়। এ সময় কিষাণ ভারওয়াদ তার ভাইয়ের গাড়ির পেছনে বসে ছিলেন। জানা গিয়েছে যে, ৬ জানুয়ারী ভারওয়াদর একটি সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্মের পোস্ট নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়। যার পরে মুসলিম সম্প্রদায়ের কিছু সদস্য ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত লাগার কারণে অভিযোগ দায়ের করেছিল।

ATS আধিকারিকরা জানিয়েছেন যে, মৌলবি কমর গনি উসমানিকে দিল্লি থেকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এর আগে একই মামলায় শুক্রবার আহমেদাবাদ থেকে গ্রেফতার করা হয় মোহাম্মদ আইয়ুব জাভরাওয়ালাকে। এই মামলায় ধুন্ধুকার বাসিন্দা শাব্বির চোপড়া (২৫) ও ইমতিয়াজ পাঠান (২৭)কেও গ্রেফতার করা হয়েছে।

এটিএস-র এসপি ইমতিয়াজ শেখ জানিয়েছেন, শাব্বির চোপড়া কিষাণ ভারওয়াদকে গুলি করেছে। সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম ইনস্টাগ্রামের মাধ্যমে উসমানির সঙ্গে যোগাযোগ ছিল শাব্বিরের। তিনি জানান, মৌলবি উসমানি একটি সংগঠন পরিচালনা করে। মৌলবি নিজ সম্প্রদায়ের যুবকদের নবী মুহাম্মদকে অপমান করায় প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য উস্কানি দিয়েছিল। আহমেদাবাদের পুলিশ সুপার (এসপি) বীরেন্দ্র সিং যাদব বলেছেন যে, প্রাথমিক তদন্তে জানা গিয়েছে যে শাব্বির পাঠানের বাইকের পিছনে বসে ছিল এবং সে ভারওয়াদের উপর গুলি চালায় এবং ঘটনাস্থলেই ভারওয়াদের মৃত্যু হয়।

ATS আধিকারিকরা জানিয়েছেন যে, মৌলবি কামারগানি উসমানিকে দিল্লি থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং সে এই মামলায় গ্রেপ্তার হওয়া দ্বিতীয় মাওলানা। এটিএসের পুলিশ সুপার ইমতিয়াজ শেখ বলেছেন যে, শাব্বির চোপড়া সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম ‘ইনস্টাগ্রাম’-র মাধ্যমে উসমানির সাথে যোগাযোগ করেছিল। এরপরই ভারওয়াদকে হত্যার নীল নকশা প্রস্তুত করা হয়।

Related Articles

Back to top button