নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গ

বোমা বানাতে গিয়ে TMC নেতা মুস্তাক শেখের উড়ে গেল দুই হাত! বিজেপির CAA-সমর্থন সভাতে ফাটাতে চেয়েছিল বোমা!

পশ্চিমবঙ্গের (West Bengal) বীরভূমের লেবাড়া গ্রামে একটি মর্মান্তিক ঘটনা ঘটেছে। বাংলায় তৃণমূল কংগ্রেস বুথের সভাপতি মোস্তাক শেখ বোমা তৈরির সময় বিস্ফোরণ ঘটায় তার দুটি হাত কাটা গেছে । এই বোমার তীব্রতা এত বেশি ছিল যে বোমার শব্দ শুনে গ্রামের অনেক লোক পালিয়ে যায়। দাবি করা হচ্ছে যে মোস্তাক শেখ এই বোমা তৈরি করছিল CAA-র সমর্থনে বিজেপি আয়োজিত সমাবেশে বিস্ফোরণ ঘটানোর জন্য। এখন TMC এই ঘটনাটিকে আড়াল করার চেষ্টা করছে।

দাবি অনুযায়ী, TMC নেতা মোস্তাক শেখের সাথে এই মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটে যখন বাংলার লেবাড়া গ্রামের পশ্চিমদিকে এক ড্রেনের পাশে বোমা তৈরির কাজ করছিল। এর পরে, ঘটনাস্থল জুড়ে রক্ত, পাথর, গোলাবারুদ ছড়িয়ে পড়েছিল। যদিও বিস্ফোরণের সাথে সাথেই এই জায়গাটিকে সাবধানতার সাথে মাটি দিয়ে ঢেকে দেওয়া হয়। অবশ্য এই ঘটনাকে তৃণমূল কংগ্রেস মিথ্যে বলে দাবি করছে।  এই ঘটনার বিষয়ে জেলার তৃণমূলের সাধারণ সম্পাদক এবং পাড়ুইয়ের বাসিন্দা মোস্তাক হুসেন ঘটনাকে মিথ্যা বলেছেন।

স্থানীয় বাসিন্দা এবং রাজ্য বিজেপি সংখ্যালঘু সেলের সচিব শেখ সামাদ জানিয়েছেন, ঘটনার সময় ক্ষমতাসীন বুথের সভাপতি এবং লেবাড়া গ্রামের বাসিন্দা বাপি ওরফে মুস্তাক শেখ তার সঙ্গী সাথীদের নিয়ে বোমা তৈরি  করছিলেন। এদিকে অজান্তে বোমা ফেটে বাপির হাত দুটোই উড়ে যায় বলে দাবি করা হয়েছে। মোস্তাক শেখ ছাড়াও আরও তিনজনকে গুরুতর অবস্থায় সেখান থেকে নিয়ে যাওয়া হয়।

ঘটনার পরে বাপীকে শক্তিগড়ের একটি নার্সিংহোমে ভর্তি করা হয়। বিজেপি অভিযোগ তুলেছে যে বোমা মঙ্গলবার (৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২০) হওয়া বিজেপি এর অভিনন্দন যাত্রার উপর হামলা করার জন্যই তৈরি করা হচ্ছিল। এটি লক্ষণীয় যে পশ্চিমবঙ্গে নাগরিকত্ব সংস্থান আইন (CAA) নিয়ে চলা বিরোধ প্রদর্শন গুলি হিংস্র হয়ে উঠেছে। CAA নিয়ে তৃণমূল একেবারে বিজেপির বিরোধীমুখী হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Back to top button
Close