Press "Enter" to skip to content

চীন এক সময় ছিল হিন্দুরাষ্ট্রের অংশ! রামায়ণ,মহাভারতে পাওয়া যায় স্পষ্ট প্রমান

শেয়ার করুন -

হিন্দুদের পুণ্যভূমি ভারতবর্ষে বহু আক্রমনকারী বার বার হানা দিয়েছে, তবে এদের মধ্যে অন্যতম বিপদজনক ছিল ইংরেজরা। এরা শাসন করতে নেমে প্রথমেই ভারতের ইতিহাস বিকৃত করতে শুরু করেছিল। কারণ এরা বুঝেছিল এই ইতিহাস পড়লে বীর, সাহসী যোদ্ধা তৈরি হতে বেশি সময় লাগাবে না। তাই ইতিহাস বিকৃত করে, ইতিহাস লুকিয়ে হিন্দু জাতিকে দুর্বল করার যে পক্রিয়া শুরু হয়েছিল তা আজও চলছে। মুঘল, ইংরেজদের তাড়িয়ে দেওয়ার এত বছর পরেও আজ বিদ্যালয়ে রামায়ণ, মহাভারত পর্যন্ত পড়ানো হয় না।

আসল ইতিহাস পড়ানো শুরু হলে পুরো বিশ্ব ভারতকে প্রণাম করবে এবং প্রত্যেক ভারতীয় নিজেদের ইতিহাসের উপর গর্ববোধ করবে। আজকে চীন পাকিস্তানের মতো করে ভারতের বিরুদ্ধে বিষ উগরাচ্ছে কিন্তু চীন পাকিস্তানের মতোই হিন্দুরাষ্ট্র ছিল। India Rag এর পাঠকদের আজ এই বিষয়েই বিস্তারিত তথ্য জানানোর চেষ্টা করবো। জানিয়ে দি হিন্দুরা প্রায় পুজোর সময় জম্বুদ্বীপের কথা উল্লেখ করে। জম্মুদ্বীপের ৯ টি দেশ ছিল। এর মধ্যে হরিবর্ষ, ভদ্রাস, কিংপুরুষ ছিল উল্লেখযোগ্য। এই ৩ টি স্থান মিলে এলাকা হতো সেটাই আজকের চীন।

চীন প্রাচীনকালে হিন্দুরাষ্ট্র ছিল। ১৯৩৪ সালে একটা খননকার্য হয়েছিল। সেই সময় চীনের সমুদ্রের তীরে থাকা একটা প্রাচীন শহর চুয়াংজোতে ১০০০ বছরেরও পুরানো বহু হিন্দু মন্দিরের অংশ পাওয়া যায়। এই এলাকাকে প্রাচীনকালে হরিবর্ষ বলা হতো যেমনভাবে ভারতকে ভারতবর্ষ বলা হয়। ভারতীয় প্রদেশ অরুণাচলের রাস্তায় লোকজন চীনে যাতায়াত করতো। লাদাখ হয়েও চিনে যাতায়াত হতো কিত্নু ওই পথে তিব্বতকে পার করতে হতো। সেই সময় তিব্বতকে ত্রিবেষ্টক বলা হতো।

তিব্বত দেবলোক ও গন্ধর্ব লোকের অংশ ছিল। চাইনিজ পর্যটক হিউয়েন সাং ও আলবেরুনীর এর সময় পর্যন্ত কামরূপকে চীন এবং বর্তমান চীনকে মহাচীন এবং প্রাজ্ঞজ্যোতিষ বলা হতো। অর্থশাস্ত্রের রচয়িতা কৌটিল চীন শব্দের প্রয়োগ কামরূপের জন্য করেছিলেন।
রামায়ণের বালকান্ডে প্রাজ্ঞজ্যোতিষ এর স্থাপনার বিষয়ে উল্লেখ রয়েছে।

মহাভারতের সভাপর্বে ভারতবর্ষের প্রাজ্ঞজ্যোতিষ (পুর) প্রান্তের উল্লেখ পাওয়া যায়। এই বিশাল প্রান্তের ভ্রমণে একবার ভগবান শ্রী কৃষ্ণ গিয়েছিলেন। এটা সেই সময়ের ঘটনা যখন উনার অনুপস্থিতিতে শিশুপাল দ্বারকা জ্বালিয়ে দিয়েছিলেন। মহাভারতের সভাপর্বে ভগবান শ্রী কৃষ্ণ নিজে বিষয়টি উল্লেখ করেছেন। হিউয়েন সাং বলেছেন কামরূপ প্রান্তে এক বংশের ১০০০ রাজারা একটানা শাসন চালিয়ে ছিলেন। এক একজন রাজাকে ২৫ বছর দিলেও ২৫ হাজার বছর হয়।

এই ইতিহাসের বিষয়ের ইতিহাসবিদরা খোঁজার চেষ্টাও করে না। কারণ খুঁজে বের করলেই হিন্দুদের গৌরবশালী ইতিহাস বের হতে শুরু হবে। কালক্রমে মহাচীন হয়ে যায় চীন এবং প্রাজ্ঞজ্যোতিষ (পুর) কামরূপ হয়ে যায়। কামরূপ বেশকিছু দেশে বিভক্ত হয়ে যায় এবং মহাচীন থেকে মহা শব্দ মুছে যায়। বলা হয় মঙ্গল, তাতার ও চাইনিজরা চন্দ্রবংশী। চন্দ্রবংশী ও কৌরবদের পূর্বপুরুষ একই।