নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

একুশের নির্বাচনের আগেই তৃণমূল সরকারের পতন হবে, ভবিষ্যতবাণী করলেন অর্জুন সিংহ

কলকাতাঃ পশ্চিমবঙ্গে (West Bengal) আগামী বছর হতে চলা বিধানসভা নির্বাচনের আগে রাজ্য রাজনীতি বড় বদল চোখে পড়ছে। আর সেই ক্রমেই ব্যারাকপুরের বিজেপির সাংসদ অর্জুন সিংহ (Arjun Singh) বড় বয়ান দিয়ে বলেন, তৃণমূল (All India Trinamool Congress) নেতা শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari) যদি বিজেপিতে যোগ দেন তাহলে নির্বাচনের আগেই বাংলায় মমতা সরকার ভেঙে যাবে। উনি এর আগেও বলেছিলেন যে, তৃণমূলের পাঁচজন সাংসদ আর কয়েকজন বিধায়ক বিজেপিতে যোগ দেওয়ার জন্য মুখিয়ে আছেন।

রাজ্যে আগামী বছর মার্চ-এপ্রিল মাসে নির্বাচন হওয়ার কথা। আর এর আগে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আর তৃণমূল কংগ্রেসকে বড়সড় ঝটকা দিয়ে তৃণমূলের দাপুটে নেতা শুভেন্দু অধিকারী মন্ত্রীসভা থেকে ইস্তফা দিয়ে দিয়েছেন। যদিও তিনি এখনও তৃণমূলেই আছেন, কারণ তিনি বিধায়ক পদ থেকেও ইস্তফা দেন নি আর না কোনও দলে যোগ দিয়েছেন। বিগত কয়েক মাস ধরেই শুভেন্দু অধিকারী বেসুরো গাইছেন। শুধু শুভেন্দুই না, তৃণমূলের অনেক বিধায়ক এবং মন্ত্রী একের পর এক পরোক্ষ ভাবে দল বিরোধী মন্তব্য করে চলেছেন।

দুদিন আগে বিজেপির নেতা মুকুল রায় বলেছিলেন যে, ‘আমার আশা শুভেন্দু বিজেপিতেই আসবেন।” উনি এই মন্তব্য করে জল্পনা আরও বাড়িয়ে দিয়েছিলেন। তবে আজ শুভেন্দু অধিকারীকে নিয়ে সমস্ত জল্পনার অবসান ঘটতে পারে, কারণ উনি আজ সাংবাদিক বৈঠক করে নিজের অবস্থান স্পষ্ট করবেন বলে আশা।

শুভেন্দু অধিকারীর বিজেপিতে যোগ দেওয়ার চর্চার মধ্যে বিজেপির সাংসদ অর্জুন সিং বড় বয়ান দিয়েছেন। উনি জানিয়েছেন যে, শুভেন্দু অধিকারী যদি বিজেপিতে যোগ দেন, তাহলে নির্বাচনের আগেই সরকার ভেঙে যাবে। উনি বলেন, শুভেন্দু অধিকারী দল ছাড়ার পর অনেক নেতা, মন্ত্রী আর সাংসদ সরকারের সঙ্গ ত্যাগ করবেন।

আরেকদিকে, রাজ্যে রাজনৈতিক সরগরমের মধ্যে বিজেপির মহাসচিব তথা বঙ্গ বিজেপির পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয় বড় বয়ান দিয়ে বলেছেন যে, জানুয়ারি মাস থেকে বাংলাদেশি হিন্দু, বৌদ্ধ, জৈন, খ্রিষ্টান, শিখ, পারসি শরণার্থীদের নাগরিকতা দেওয়া হবে।

Related Articles

Back to top button