Press "Enter" to skip to content

PoK দখল করতে পারে ভারত, সেই আশঙ্কায় LoC-তে জন সাধারণকে ঢাল বানাচ্ছে পাকিস্তানি সেনা

শেয়ার করুন -

পাকিস্তানের (Pakistan) প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের (Imran Khan) এখন সবথেকে বড় আশঙ্কা হল যে, ভারত যেকোন সময়ে পাক অধিকৃত কাশ্মীর (PoK) দখল করে নিতে পারে। আর এই কারণে ইমরান খান সরকার পাক অধিকৃত কাশ্মীর (PoK) কে বাঁচানোর জন্য আম জনতাকে ঢাল বানানোর ষড়যন্ত্র করছে। ইমরান খান সরকার PoK তে থাকা ৩৩ হাজার ৪৯৮ টি পরিবারকে প্রতিমাসে ১৫৪৬ টাকা করে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন। পাকিস্তান সরকার যতই বলুক যে তাঁদের তরফ থেকে দেওয়া এই রাশি PoK মানুষদের সাহায্যের জন্য, কিন্তু আসলে এই টাকা পাকিস্তানি সেনাকে ভারতের হাত থেকে সুরক্ষিত রাখার জন্য খরচ করছে তাঁরা।

বালাকোটে যেমন ভাবে ভারতীয় বায়ুসেনা ঢুকে পাকিস্তানে আশ্রয় নেওয়া জঙ্গি ঘাঁটি গুলো গুঁড়িয়ে দিয়েছিল, এরপর থেকেই পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের মনে চরম আশঙ্কার সৃষ্টি হয়েছিল যে, ভারত যেকোন সময় PoK দখল করে নিতে পারে। আর এই কারণে নীলম ঘাঁটি  থেকে ভারত আর পাকিস্তানের তরফ থেকে লাগাতার ফায়ারিং এর মধ্যেও পাকিস্তান সেখানে কামানের সংখ্যা বাড়িয়েই চলেছে।

শোনা যাচ্ছে যে, বিগত ১০ দিনে লাইন অফ কন্ট্রোলে পাকিস্তানি সেনা অনেক কামানের সাথে এসে পৌঁছেছে। এর আগে এরকম গতিবিধি কার্গিল যুদ্ধের সময় দেখা গেছিল। পাকিস্তানি সেনার রিজার্ভ কম্যান্ডোরা এলওসির আশেপাশে ক্যাম্প বানাচ্ছে। পাকিস্তানি সেনা ইমরান খানের আশঙ্কা দেখে এলওসিতে প্রচুর পরিমাণে আর্টিলারি হাতিয়ার পাঠিয়ে দিয়েছে। শোনা যাচ্ছে যে, ওই হাতিয়ার গুলোকে প্ল্যাস্টিকের কভার দিয়ে এলওসিতে আনা হয়েছে।

পাকিস্তানের এক সেনা আধিকারিক জানান যে, যদি ভারত পাক অধিকৃত কাশ্মীরের দিকে এগিয়ে আসার চেষ্টা করে, তাহলে পাকিস্তানি সেনাও তাঁদের রুখে দেওয়ার জন্য সবকিছু করবে। আর এই কারণেই সেনার রিজার্ভ কম্যান্ডোদের এলওসিতে পাঠানো হচ্ছে।