নতুন খবরভারতবর্ষ

হিন্দুদের বিরুদ্ধে বিষ উগড়ে দিয়েছিল ইমরান খানের পার্টি! এক কথায় মুখ বন্ধ করিয়ে দিলেন পরেশ রাওয়াল

ভারতের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী একবার বলেছিলেন, ‘আপনি বন্ধু বদলাতে পারবেন, কিন্তু প্রতিবেশী না।” সময় বদলেছে, পরিস্থিতি বদলেছে, ভারত দিন রাত উন্নতি করে চলেছে। কিন্তু এই কথা তখনও যা ছিল, এখনো তেমনই আছে। আমাদের প্রতিবেশী দেশ আজও নিজেদের কাপুরুষের মতো কাজ এখনো বন্ধ করেনি। যেকোন পরিস্থিতিতে পাকিস্তান (Pakistan) ভারতের খালি ক্ষতিই করতে চায়। কিন্তু তাঁরা বারবার ভারতের কাছে থাপ্পড় খেও শুধরাচ্ছে না। আরও একবার পাকিস্তান এমনই এক কাজ করল, যেটার বলিউড অভিনেতা পরেশ রাওয়াল (Paresh Rawal) যোগ্য জবাব দেন।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের (Imran Khan) দল ‘পাকিস্তান তেহরিক-এ-ইনসাফ” এর তরফ থেকে পাকিস্তানে পোস্টার লাগানো হয়। ওই পোস্টারে সংখ্যালঘু হিন্দুদের নিয়ে বড়ই আপত্তিজনক কথা বলা হয়েছে। পোস্টারে দেখা ছবিতে লাহোরের মহাসচিব মিঞা মোহম্মদ উসমানকে দেখা যাচ্ছে। এর সাথে সাথে মোহম্মদ আলী জিন্নাহ এর ছবি আর ইমরান খানের ছবি দেখা যাচ্ছে। নীচের দিকে ভারতের পতাকার ছবি আছে, যেখানে কালো কালি দিয়ে কাটা আছে।

এই পোস্টার পাকিস্তানে ‘কাশ্মীর একটা দিবস” উপলক্ষে লাগানো হয়েছিল। সেখানে লেখা আছে, ‘হিন্দুরা কথাতে না, লাথি খেয়ে মানে।” পাকিস্তানের বরিষ্ঠ সাংবাদিক নায়লা ইনায়াত এই পোস্টার নিজের ট্যুইটার অ্যাকাউন্টে শেয়ার করেন। উনি বলেখেন, কাশ্মীর দিবসে পিটিআই এর লাহোর জেনারেল সেক্রেটারির এই পোস্টার দেখুন, এটাই নতুন পাকিস্তান।

 

এই বিতর্কিত পোস্টার নিয়ে বলিউড অভিনেতা পরেশ রাওয়াল যোগ্য জবাব দেন। ওনার এক কথায় পাকিস্তানের মুখ বন্ধ হয়ে যায়। পাকিস্তানকে তাঁদেরই ভাষায় জবাব দিয়ে প্রেশ রাওয়াল লেখেন, ‘ হা হা হা অনেক উচ্চকাঙ্খি! ওঁরা আগে থেকেই হাঁটু গেঁড়ে বসে আছে … আর লাথি মারতে পারবে না।” আপনাদের জানিয়ে রাখি, পরেশ রাওয়াল ট্যুইটারে বেশ অ্যাক্টিভ থাকেন। সামাজিক আর রাজনৈতিক ইস্যু গুলো নিয়ে তিনি বরাবরই সরব হন।

 

Back to top button
Close