নতুন খবরভারতবর্ষ

চিনের ঘুম কাড়তে লাদাখ আর সিকিম সীমান্তে প্রস্তুতি শুরু করল ভারত

নয়া দিল্লীঃ লাদাখ এবং সিকিমে বাস্তবিক নিয়ন্ত্রণ রেখার পাশে চিনের (China) সেনা আচমকাই আক্রমনাত্বক রুপ ধারণ করে। বিগত কিছুদিন ধরে চিন এবং ভারতের (India) সেনার মধ্যে বেশ কয়েকবার সংঘর্ষ বাধে। প্রসঙ্গত, ভারত নিজের সীমান্তে চরম প্রস্তুতি নেওয়ার ফলে ঘুম উড়েছে চিনের।

চিনের সবথেকে বড় সমস্যার কারণ হল সীমান্তে ভারতীয় সড়ক সংগঠন দ্বারা যুদ্ধস্তরে সড়ক নির্মাণ শুরু করা। BRO ২০১৮ থেকে পাঁচ বছরে প্রায় ৩ হাজার ৩২৩ কিমি দীর্ঘ ২৭২ টি রাস্তা বানানোর পরিকল্পনা নিয়েছে। আর ওই সড়ক গুলোর মধ্যে রণনৈতিক দিক থেকে গুরুত্বপূর্ণ ৬১ টি সড়ক যোজনা যুক্ত আছে। বিগত আড়াই বছরে বিআরও প্রায় ২ হাজার ৩০৪ কিমি দীর্ঘ সড়ক নির্মাণ করেছে।

সরকারি সুত্র অনুযায়ী, যখন রণনৈতিক দিক থেকে গুরুত্বপূর্ণ জায়গা গুলোতে সড়ক নির্মাণ কাজ পৌঁছায় তখনই  চিন আচমকা আক্রমনাত্বক হয়ে যায়। বিশেষকরে দারবুক-শেয়ক-দৌলত বেগ অল্ডি রোড নিয়ে চিন বারবার আপত্তি জাহির করে। আপাতত পূর্ব লাদাখে গলম্বা নদী আর প্যাংগং লেকের পাশের চারটি এলাকায় নির্মাণ কাজ নিয়ে বিবাদ সৃষ্টি হয়।

যেহেতু সড়ক যোজন গুলো রাজনৈতিক আর সামরিক দৃষ্টি থেকে খুবই গুরুত্বপূর্ণ, এরজন্য ভারত ঠিক করেছে যে, তাঁরা চিনের চাপের সামনে মাথা নত করবে না। যেভাবে ডোকালামে ভারত চিনের আক্রমনাত্বক মনভাবে জবাব সোজাসুজি কূটনৈতিক দিক থেকে দিয়েছে, এবারও সেরকমই পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে। যদিও চিনের সেনা তাবু গাড়ার পর ভারত লাইন অফ অ্যাকচুয়াল কন্ট্রোলে সেনার সংখ্যা বৃদ্ধি করে চিনের উপর পাল্টা চাপ সৃষ্টি করেছে।

Related Articles

Back to top button