Press "Enter" to skip to content

দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠছেন জওয়ানরা, সাতদিনের মধ্যে চীনকে শিক্ষা দিতে আবারও যোগ দেবেন কর্তব্যে

শেয়ার করুন -

লাদাখঃ লাদাখের (Ladakh) গালওয়ান উপত্যকায় (Galwan Valley) ভারতীয় সেনার আর চীনের সেনার (India China Face off) মধ্যে হওয়া সংঘর্ষে চীনের সেনা ১০ জন ভারতীয় জওয়ানকে বন্দি বানিয়েছিল। সংবাদসংস্থা PTI তাদের একটি রিপোর্টে এই দাবি করেছিল। PTI এর রিপোর্ট অনুযায়ী, ‘চীনের সেনা দুই ভারতীয় মেজর সমেত ১০ জন জওয়ানকে বন্দি বানিয়েছিল। আর তিনদিন কথাবার্তা চলার পর তাদের মুক্তি দেয় চীন। যদিও এটা নিয়ে ভারতীয় সেনার তরফ থেকে কোন আধিকারিক বয়ান জারি করা হয়নি।

এর আগে ভারতীয় সেনা সেই সমস্ত মিডিয়া রিপোর্ট গুলোকে খারিজ করেছিল, যেখানে বলা হয়েছিল যে লাদাখে চীনের সাথে সংঘর্ষ হওয়ার পর ভারতে বেশকিছু জওয়ান এখনো নিখোঁজ। ভারতীয় সেনা একটি বয়ান জারি করে বলে, চীনের সাথে হওয়া সংঘর্ষে ভারতের কোন জওয়ান নিখোঁজ না।

তবে এরকম খবর পাওয়া যাচ্ছিল যে, লাদাখে দুই দেশের সেনার মধ্যে হওয়া খুনি সংঘর্ষের পর ভারতীয় সেনার কয়েকজন জওয়ানকে বন্দি বানিয়েছিল চীন। এছাড়াও ওই খুনি সংঘর্ষে ভারতের ২০ জন জওয়ান শহীদ হন এবং চীনের ৪৩ জন জওয়ানকে পিটিয়ে মারে ভারতীয় সেনা। যদিও চীনের তরফ থেকে এখনো তাদের সেনার মৃত্যুর কোন সংখ্যা জারি করেনি। ভারতের বিদেশ মন্ত্রালয়ের মুখপাত্র অনুরাগ শ্রীবাস্তব একটি মিডিয়া ব্রিফিংয়ে বলেন, সোমবার হওয়া দুই দেশের সংঘর্ষে ভারতের কোন সেনাই নিখোঁজ হয়নি।

আরেকদিকে সংবাদসংস্থা ANI অনুযায়ী, ভারতীয় সেনার সুত্র জানিয়েছে যে, বৃহস্পতিবার দুপুর পর্যন্ত কোন জওয়ানের অবস্থাই শোচনীয় ছিল না। আর যারা আহত ছিলেন, তাঁরা ধীরে ধীরে সুস্থ হয়ে উঠছেন। ১৮ জন ভারতীয় জওয়ানকে লেহ এর হাসপাতাকে ভর্তি করানো হয়েছে। আর তাঁরা সবাই আগামী ১৫ দিনের মধ্যে কাজে যোগ দিয়ে দেবেন। আরেকদিকে, ৫৮ জন জওয়ান যারা সামান্য চোট পেয়ছিলেন, তাঁরা এক সপ্তাহের মধ্যেই কাজে যোগ দেবেন।