Press "Enter" to skip to content

আমেরিকার সেনাকে মারতে গিয়ে ১৭৬ জন বিমান যাত্রীকে মেরেছে ইরান! শিকার করল ইরানের সেনা

শেয়ার করুন -

অবশেষে ইরান স্বীকার করলো যে তাঁদের সেনা ভুল করে ইউক্রেনের যাত্রী বিমান বোয়িং ৭৩৭ কে ধ্বংস করেছিল। ওই বিমানে ১৭৬ জন যাত্রী ছিল, যারা সবাই মৃত্যু বরণ করেন। সেনা একটি বয়ান জারি করে বলে, এটা আমাদেরই ভুল ছিল। আমেরিকার সৈন্য আড্ডায় হামলা করার সময় ইরান এই না ক্ষমা করা ভুল করে ফেলে।

বিমান তেহরানের ইমাম খুমৈনি আন্তর্জাতিক বিমান বন্দর থেকে ইউক্রেন্সের রাজধানী কীবের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছিল। ইরানের আধিকারিকরা প্রথমে জানিয়েছিল যে, প্রযুক্তিগত ভুলের জন্য এই বিমান দুর্ঘটনাগ্রস্ত হয়ে পড়ে।

ইরানের বিমান মন্ত্রালয়ের প্রবক্তা রাজা জাফরজাহেদ বলেছিলেন যে, এই বিমান তেহরানের দক্ষিণ পশ্চিম এলাকায় দুর্ঘটনার শিকার হয়েছিল। তদন্তকারী দল আর উদ্ধারকর্মীরা যখন দুর্ঘটনা স্থলে পৌঁছায়, তখন কেউ বেঁচে ছিল না।

সেনার এই বয়ানের পর ইরানের রাষ্ট্রপতি হাসান রুহানি বলেন, ‘সেনার তদন্তে জানা গেছে যে, মানবিক ত্রুটির জন্য ইউক্রেনের বিমান ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আর এই কারণে ১৭৬ জন যাত্রী প্রাণ হারিয়েছেন। এই দুর্ঘটনা আর এর পিছনে যারা আছে তাঁদের বিরুদ্ধে তদন্ত জারি থাকবে আর তাঁদের উপযুক্ত শাস্তি দেওয়া হবে।”