Press "Enter" to skip to content

আমি তুর্কীকে শিক্ষা দেব তাতে আমাকে যতই কড়া সিদ্ধান্ত নিতে হোক: জো বিডেন

শেয়ার করুন -

আমেরিকান মিডিয়া ঘোষণা করেছে যে জো বিডেন রাষ্ট্রপতি নির্বাচন জিতে গেছেন। আর এই খবর সামনে আসার পর থেকে লিবারেল জামাতা বেশ খুশিতে মেতেছে। তবে তথাকথিত লিবারেলরা যে আনন্দে খুশি হচ্ছে তা মোটেও বাস্তবায়নের পথে নেই। আসলে আন্তর্জাতিক বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, রাষ্ট্রপতি পদে ট্রাম্প থাকুক বা বিডেন আমেরিকার বিদেশ নীতিতে খুব একটা পরিবর্তন আসবে না বরং তুর্কীর প্রতি আমেরিকা আরো কঠোর হতে পারে।

সম্প্রতি জো বিডেনের একটা ভিডিও ভাইরাল হচ্ছে। যেখানে জো বিডেন বলেছেন যে তিনি তুর্কীকে শিক্ষা দিয়েই ছাড়বেন তাতে যতই কড়া পদক্ষেপ নিতে হোক না কেন। জো বিডেনের নির্বাচনী প্রচারের ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। ভাইরাল ভিডিওতে তিনি স্পষ্ট ভাষায় তুর্কী রাষ্ট্রপতি এরদোয়ানকে টার্গেট করেছেন। এদিকে আর্মেনিয়াও আমেরিকার কাছে তুর্কীর উপর কড়া পদক্ষেপ নেওয়ার দাবি তুলেছে।

আর্মেনিয়ার জনগণ জো বিডেনকে রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ২৭০ টি আসনের বেশি আসন প্রাপ্ত করার জন্য অভিনন্দন জানিয়েছেন। একই সাথে তারা তুর্কীর উপদ্রব রুখতে কড়া একশন নেওয়ার আবেদন করেছেন। জানিয়ে দি, ট্রাম্পের ছবি একজন কঠোর নেতা হিসেবে হলেও উনি তুর্কীর উপর বেশকিছু নিষেধাজ্ঞা ঢিলে করে দিয়েছিলেন।

এখন জো বিডেন ক্ষমতায় এলে তুর্কীর উপর পুনরায় কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার হতে পারে। প্রসঙ্গত, তুর্কী ইসলামিক আত ঙ্কবাদকে ব্যাপক মাত্রায় প্রমোট করে এবং পাকিস্তানের কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে ভারত বিরোধী প্রোপোগান্ডা চালাতেও সর্বদা সচেষ্ট থাকে। এমন অবস্থায় জো বিডেনের রাষ্ট্রপতি নির্বাচন জেতা ভারতের লিবারেল বর্গের জন্য দুঃখের বিষয় হয়ে দাঁড়াতে পারে।