Press "Enter" to skip to content

১৭ বছরের নাবালিকাকে ৪৪ জন মিলে একাধিকবার গণধর্ষণ বাম শাসিত কেরলে

শেয়ার করুন -

মলপ্পুরমঃ কেরলের মলপ্পুরমে ১৭ বছর বয়সী এক নাবালিকার সাথে গণধর্ষণের মামলা সামনে এসেছে। শোনা যাচ্ছে যে, ৪৪ জন মিলে ওই নাবালিকাকে ধর্ষণ করেছে। নির্যাতিতা জানায়, ২০১৬ সালে যখন সে ১৩ বছরের ছিল, তখন তাকে প্রথমবার ধর্ষণ করা হয়। দ্বিতীয়বার আবার সে ধর্ষিতা হওয়ার পর তাকে চাইল্ড কেয়ারে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। এই মামলায় এখনো পর্যন্ত ২০ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

নির্যাতিতা জানায়, এক বছর আগে তাকে তাঁর মা আর ভাইদের সাথে থাকার অনুমতি দেওয়া হয়, কিন্তু চাইল্ড কেয়ার সেন্টার থেকে বের হওয়ার পরেই আবারও তাকে ধর্ষণ করা হয়। মলাপ্পুরমের চাইল্ড কেয়ার্স সমিতির সভাপতি রাজেশ ভাস্কর বলেন, নাবালিকা প্রথমে হোমে থাকত, কিন্তু এক বছর পর তাঁর পরিবারের কথায় তাঁকে বাড়িতে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। তাঁকে বাড়ি পাঠানোর আগে সমস্ত আইন এবং সুরক্ষার বন্দোবস্ত করা হয়।

এই বিষয়ে ইনচার্জ পুলিশ ইনস্পেকটর মহম্মদ হানিফা বলেন, নির্ভয়া সেন্টারে কাউন্সিলিংয়ের সময় নাবালিকা সব কথা জানায়। তিনি বলেন, বাচ্চাটি চাইল্ড কেয়ার সেন্টার থেকে ছুটি পাওয়ার কয়েকদিন পর থেকেই নিখোঁজ হয়ে যায়। এরপর গত বছরের ডিসেম্বর মাসে পলক্কড় থেকে তাঁর খোঁজ পাওয়া যায়।

পলক্কড় থেকে তাঁকে উদ্ধার করে নির্ভয়া কেন্দ্রে পাঠানো হয়। নির্ভয়া কেন্দ্রে কাউন্সিলিংয়ের সময় সে আধিকারিকদের সামনে তাঁর সাথে ঘটে যাওয়া নৃশংস ঘটনার বিবরণ দেয়। হানিফা বলেন, নাবালিকার বয়ানের পর আমরা প্রায় সবকটি অভিযুক্তর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে তাঁদের গ্রেফতার করেছি।