নতুন খবরভারতবর্ষরাজনীতি

গোয়ায় তৃণমূলের টিকিটে লড়বেন না, প্রার্থীপদ প্রত্যাহার করে বড় ঘোষণা লুইজিনহো ফেলেইরোর

পানাজিঃ নির্বাচনের তারিখ ঘোষণা হয়ে গিয়েছে, ঘোষণা হয়ে গিয়েছে প্রার্থীদের নামও। আর এরই মধ্যে গোয়ায় তৃণমূলের সবথেকে হেভিওয়েট প্রার্থী তথা রাজ্যের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী এবং তৃণমূলের রাজ্যসভা সাংসদ লুইজিনহো ফেলেইরো তৃণমূলের প্রার্থী তালিক থেকে নিজের নাম প্রত্যাহার করে নিলেন।

প্রাক্তন কংগ্রেস নেতা তথা মুখ্যমন্ত্রী লুইজিনহো ফেলেইরোর কাঁধে ভর করেই গোয়ায় বৈতরণী পার করার চেষ্টায় ছিল তৃণমূল কংগ্রেস। ঘুঁটিও সাজানো হয়ে গিয়েছিল ঘাসফুল শিবিরের পক্ষ থেকে। কিন্তু বিগত কয়েকদিন ধরেই সৈকত রাজ্যে ব্যাকফুটে চলে যাচ্ছে তৃণমূল। একের পর এক নেতা বিস্ফোরক অভিযোগ করে তৃণমূল ছাড়ছেন। আর এরই মধ্যে লুইজিনহো ফেলেইরোর এই সিদ্ধান্তে ফের জল্পনা উঠেছে।

উল্লেখ্য, কয়েকমাস আগেই কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলেন লুইজিনহো ফেলেইরোর। তৃণমূলের পক্ষ থেকেও তাঁকে যোগ্য সম্মান দিয়ে রাজ্যসভার সাংসদ করা হয়েছিল। লুইজিনহো ফেলেইরোর নেতৃত্বেই গোয়ায় এগিয়ে চলছিল তৃণমূল। এমনকি শিবসেনা, এনসিপি আর মহারাষ্ট্রবাদী গোমন্ত্রক পার্টির সঙ্গে জোটও করেছে তৃণমূল।

গোয়ায় বিজেপিকে উৎখাত করাই যে তৃণমূলের প্রধান লক্ষ্য, সেটা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। কিন্তু এরই মধ্যে দলের সেনাপতি লুইজিনহো ফেলেইরোর এই সিদ্ধান্ত তৃণমূলের জন্য অশনি সঙ্কেত হয়ে দাঁড়াতে পারে। জল্পনা উঠেছে যে, লুইজিনহো ফেলেইরো নাকি আবার পুরনো দল কংগ্রেসে যোগ দিতে পারেন। তবে, কী হতে চলেছে তা এখনও বলা সম্ভব নয়।

অন্যদিকে, লুইজিনহো ফেলেইরো দাবি করেছেন যে, তিনি দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশেই নাকি প্রার্থীপদ প্রত্যাহার করেছেন। জানা গিয়েছে যে, গোয়ার ফাতোরদা বিধানসভা কেন্দ্র থেকে লুইজিনহো ফেলেইরোর বদলে এবার সিওলা ভ্যাস নামের এক মহিলা প্রার্থী তৃণমূলের টিকিটে লড়বেন।

Related Articles

Back to top button