নতুন খবর

রাজ্যপালকে টুইটারে ব্লক করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী! তুললেন গুরুতর অভিযোগ

মুখমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি (Mamata Banerjee) ও পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যপাল জগদীপ ধনখরের সম্পর্কের অবনতি অনেক দিন আগেই ঘটেছে। মুখমন্ত্রী তো নিজের মুখে রাজ্যপাল কে মানেন না বলেছেন বলে অভিযোগ রয়েছে।রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান রাজ্যপাল যে ভারতবর্ষের রাষ্ট্রপতি দ্বারা নিযুক্ত তাকে অসম্মান করা মানে রাষ্ট্রের অসম্মান করা। তবে যাই হোক সম্প্রতি মুখমন্ত্রী সংবাদমাধ্যম কে বলেছেন তিনি রাজ্যপাল কে টুইটার থেকে ব্লক করেছেন।

রাজ্যপালের উপর অভিযোগ তার প্রচুর কিন্তু তিনি এই প্রসঙ্গে বলেছেন ,রাজ্যপাল সকাল সন্ধ্যা টুইট করছে ,আমদের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনছে আমি এইগুলো সহ্য করতে পারছি না। তাই টুইটারে ব্লক করে দিয়েছি। রাজ্যপালের অপসারণের দাবি অনেকে বার তৃণমূল কংগ্রেস করেছে কিন্তু আবার তৃণমূল কংগ্রেস সাংসদ সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় সোমবার বলেছেন যে রাষ্ট্রপতি রাম নাথ কোবিন্দকে রাজ্যপাল ধনখড়কে রাজ্য থেকে অপসারণের অনুরোধ করেছি। তিনি বলেন, অনুরোধ করার সময় উপরাষ্ট্রপতি ভেঙ্কাইয়া নাইডুও উপস্থিত ছিলেন।

রাজ্যপাল বিধানসভা নির্বাচনের পর রাজ্য সরকারের বেশ কিছু বিষয় এ সরব হয়েছেন এমন কি তিনি তৃণমূল সরকার কিভাবে অপশাসন চালাচ্ছে তা নিয়ে রাষ্ট্রপতির কাছে ও অভিযোগ জানিয়েছেন। তৃণমূল সরকার সবথকে বেশি বিরোধিতা করেছে রাজ্যপালের যখন রাজ্যপাল নিজে বিধানসভা নির্বাচনের পর হিংসা নিয়ে ও বিরোধীদের উপর অত্যাচার নিয়ে সরব হয়েছিলেন।

গান্ধীজির মৃত্যুবার্ষিকীতে শ্রদ্ধা জানানোর সময়, রাজ্যপাল বলেছিলেন যে তাকে লক্ষ্য করে অপমান করলেও তাকে তার দায়িত্ব পালন থেকে বিরত করতে পারে না। তিনি বলেন, গণতন্ত্র ও সহিংসতা একসঙ্গে চলতে পারে না।তাই তার উপর যতই অভিযোগ করুক না কেন তাকে সন্মান জানানো হোক না হোক তিনি তার কাজ করবেন রাজ্যের মানুষের জন্য।

Related Articles

Back to top button