Press "Enter" to skip to content

৭২ টা বন্ধ ডাকা মমতা আজ বললেন, বিজেপি রাস্তা অবরোধ করে কাউকে যেতে দেয় না!

শেয়ার করুন -

আজ শহীদ দিবসে ভার্চুয়াল জনসভায় বক্তৃতা দিচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী (Mamata Banerjee)। আজকের এই দিনে তিনি একের পর এক বিজেপির উপর আক্রমণ করে চলেছেন। তিনি বিজেপির উপর অভিযোগ করে বলেন, ওঁরা টাকা চুরি করে খায়, আর অন্যদের উপর দোষ দেয়। আজ মমতা ব্যানার্জী বলেন, বাংলায় বাংলার শাসন চলবে। কোন গুজরাটের শাসন চলবে না। উনি বলেন, উড়িষ্যা, কেরল, দিল্লী সমেত সব রাজ্যেই যদি গুজরাটের শাসন চলে তাহলে ভোটের আর কি দরকার? ইলেকশন কমিশনের কি দরকার?

উনি বিজেপির উপর আক্রমণ করে বলেন, কোন একটি ছোট ঘটনাকে কেন্দ্র করে রাস্তা অবরোধ করছে, গাড়ি জ্বালাচ্ছে। এগুলো সব বিজেপির চক্রান্তে হচ্ছে। দিল্লী থেকে টাকা নিয়ে এসব করছে। তিনি বলেন, এরকম অবাঞ্ছিত অবরোধের কারণে মানুষ নিজেদের কাজে যেতে পারছেন না। গর্ভবতী মায়েরা হাসপাতালে যেতে পারছেন না। আর ওঁরা বাংলাকে অশান্ত করে বনধ করে চলেছে।

মমতা ব্যানার্জী বলেন, বিজেপি রাজ্যে হাতে গোনা কটা আসন দখল করে লম্ফঝম্প করছে। উনি বলেন, বিজেপি ভাবছে ওই কটা আসন দখল করে ২১ এ রাজ্যে ক্ষমতায় আসবে। কিন্তু বাংলার মানুষ সেটা হতে দেবে না। উনি বলেন, বাংলা ভারতবর্ষকে পথ দেখাবে। উনি বলেন আমাদের নেতা নেতাজী, গান্ধী জি, মাতঙ্গিনী হাজরা, বিরসা মুন্ডা, স্বামী বিবেকানন্দ। ওঁদের নেতা পকেটে টাকা নিয়ে ঘুরে বেরায়।

উনি বলেন, বাংলা হচ্ছে জনগণের ভাবনা, চিন্তা বিশ্বাস। উনি বলেন, ২১ তৃণমূল কংগ্রেসই সরকার গঠন করবে। উনি বলেন, করোনা কারণে আমরা সব উৎসব ভালো মতো করতে পারছি না। আমাদের ২১ এ শহীদ দিবসের অনুষ্ঠানের আয়োজনও ঠিকমত হল না। উনি বলেন, আমরা যেমন এর আগে যেমন ৩০ থেকে ৪০ লক্ষ মানুষের সমাগম করতে সক্ষম হতাম। তেমনই এবছর আমি ৪০ থেকে ৫০ লক্ষ মানুষের কাছে পৌঁছে গেছি।

উনি বলেন, সংবাদ মাধ্যমের পকেটে টাকা দিচ্ছে রাজনৈতিক দল। কোন একটা ব্লকে কিছু হলে, সেই খবর সকালে বিকেলে নানার রকম রান্না করে দেখানো হয়। উনি আজ কন্নাশ্রী প্রকল্প নিয়েও গর্ব করেন। উনি বলেন, আমার ইচ্ছে ছিলে এবছর কর্মসংস্থাকে ভালো মতো সাজানো। কিন্তু করোনা আর আমফানে সব ভেস্তে দিয়েছে। উনি বলেন, সাড়া ভারতে ৪৫% কর্মসংস্থান কমেছে। কিন্তু শুধুমাত্র বাংলায় ৪০% কর্মসংস্থান বেড়েছে।