নতুন খবরভারতবর্ষ

করোনায় পশ্চিমবঙ্গে মৃতের সংখ্যা ছয় থেকে কমিয়ে তিনে আনলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী

কলকাতাঃ আজ ের () বৈঠকে মুখ্যমন্ত্রী () জানিয়ে দেন যে, ে () করোনার () প্রকোপে ৬ না ৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। মুখ্যমন্ত্রীর এই ঘোষণার পর রাজ্যে শুরু হয়েছে জোর গুঞ্জন। একদিকে মমতা ব্যানার্জীর করোনার বিরুদ্ধে লড়াই নিয়ে যেমন প্রশংসা হচ্ছিল, তেমনই আজকে ওনার এই বক্তব্যের পর চারিদিকে সমালোচনা শুরু হয়ে গেছে। বিরোধীদের দাবি অনুযায়ী, নিজের মহিমাকে বাড়ানোর জন্য মমতা ব্যানার্জী রাজ্যে করোনায় আক্রান্তদের মৃতের সংখ্যা কমিয়ে অর্ধেক করে দিয়েছেন।

আজকেই সোশ্যাল মিডিয়া বাম সমেত বাকি বিরোধী দল গুলো মমতা ব্যানার্জী মোকাবিলার ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন তুলে একটি পরিসংখ্যান দেখিয়েছে। ওই পরিসংখ্যানে বলা হয়েছে যে, দেশের অনুপাতে এরাজ্যে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃতের সংখ্যা অনেক বেশি।

বিগত কয়েকদিন ধরে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃতের পাওয়া গেছে। বেলঘরিয়া,দমদম, হুগলি ও কালিম্পঙে একজন করে এবং হাওড়ায় দুজন, সবমিলিয়ে এপর্যন্ত রাজ্যে মোট ছ’জনের মৃত্যু হয়েছে। কিন্তু মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জী আজ ঘোষণা করেন যে, রাজ্যে মোট করোনা পজেটিভ কেস ৩৭ টি। এদের মধ্যে তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। আবার এদের তিনজনের মধ্যে একজনের মৃত্যু হয়েছে নিমোনিয়ায়। এছাড়াও রাজ্যে তিনজন সুস্থ হয়ে উঠেছে সেই জানিয়েছন তিনি।

মমতা ব্যানার্জী অভিযোগ করে বলেন, যে যার মতো পারছে সংখ্যা বাড়িয়ে চলেছে। উনি বলেন, তথ্য ছাড়াই নিজের ইচ্ছেমতো কথা বলছে অনেকে। নিজেদের ইচ্ছেমতো মৃতের সংখ্যা বাড়িয়ে চলেছে। মমতা ব্যানার্জীর এই বক্তব্যের পর রাজনৈতিক মহলে সমালোচনার ঝড় উঠেছে। বিরোধীরা বলছে, তাহলে কি হাসপাতাল গুলো ইচ্ছে করে ভুল তথ্য দিচ্ছে? বিরোধীরা বলছে, তাহলে কি গুজব হাসপাতাল থেকেই ছড়াচ্ছে? না মমতা ব্যানার্জী নিজের মহিমা গড়তে নিজেই মৃতের সংখ্যা কমিয়ে দিচ্ছেন?

Back to top button
Close