Press "Enter" to skip to content

CAA নিয়ে বিরোধীরা মুসলিমদের উস্কাচ্ছে, সরকারের উচিৎ কড়া পদক্ষেপ নেওয়াঃ মৌলানা কলবে জাওয়াদ

শেয়ার করুন -

শিয়া ধর্মগুরু মৌলানা কলবে জাওয়াদ নকভি (maulana kalbe jawad) নাগরিকতা সংশোধন আইন নিয়ে বলেন, এটা নিয়ে মুসলিমদের অন্দরে ভয় আর বিভ্রান্তি ছড়ানো হয়েছে। উনি বলেন, বিরোধী দল গুলো নিজেদের সুবিধার জন্য মুসলিমদের উসকানি দিচ্ছে। সরকারের উচিৎ এই বিভ্রান্তি দূর করার জন্য জন জাগরুক অভিযান চালানো। শিয়া ধর্মগুরু বলেন, ‘CAA  এর বিক্ষোভ প্রদর্শনে সমস্ত বিরোধী দল গুলো সুবিধা নিয়েছে। তাঁরা মুসলিমদের উসকানি দিচ্ছে আর বলছে, তাঁদের দেশ থেকে বের করে দেওয়া হবে। এখন এমন পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে যে, মুসলিমরা ঠিক করতে পারছে না, তাঁরা কি করবে।”

উনি বলেন, রাজনৈতিক দল গুলো এই বিক্ষোভ প্রদর্শনের লাভ নিচ্ছে। জাব্বাদ বলেন, ‘এরা আসে আর ভিড়ের সাথে মিশে যায়। এরপরই হিংসা ছড়ায়। বিরোধীরা মুসলিমদের ব্যাবহার করছে। সরকার এই আইন নিয়ে মুসলিম সম্প্রদায়ের ভ্রম গুলোকে দূর করুক।”

জাওয়াদ বলেন, অল ইন্ডিয়া মুসলিম পার্সোনাল ল বোর্ডের সাথে সিএএ বিরোধী প্রদর্শনের কোন সম্পর্ক নেই। AIMPLB এই মামলায় চুপ করে আছে। যোগী সরকারের মন্ত্রী মোহসিন রাজার বয়ানে AIMPLB কোন জবাব দেবেনা জানিয়ে দিয়েছে।

AIMIM প্রধান আসাদউদ্দিন ওয়াইসি (Asaduddin Owaisi) কে নিয়ে ওনাকে প্রশ্ন করা হলে উনি বলেন, ওয়াইসি রাজনৈতিক ব্যাক্তির মতো কাজ করছে। উনি কোন ধর্মগুরুও নন, আর কোন মৌলানাও নন উনি শুধু রাজনৈতিক ব্যাক্তিত্ব। মৌলানা বলেন, ‘অন্য দেশ থেকে আসা হিন্দু, বৌদ্ধ, জৈন, খ্রিস্টান আর পারসিরা এদেশের নাগরিকতা পাবে। আর এই নিয়েই মুসলিমরা ভয়ে আছে। তাঁরা ভাবছে তাঁদের তাড়িয়ে দেওয়া হবে। আর এটা নিয়েই সরকারের বোঝানো উচিৎ যে, ওদের কিছুই হবেনা।”