Press "Enter" to skip to content

কুখ্যাত আতঙ্কবাদী জালিস আনসারী পলাতক! মহারাষ্ট্রের সরকারের উপর উঠছে প্রশ্নঃ

শেয়ার করুন -

মহারাষ্ট্রে কংগ্রেস,NCP ও শিবসেনার মিলিত সরকার ক্ষমতায় আসার পরই বেশকিছু অস্বাভাবিক ঘটনা ঘটে চলেছে। ১৯৯৩ সালে মুম্বাইয়ে সিরিয়াল বিস্ফোরণে দোষী সাব্যস্ত হওয়া ডঃ বোম্ব নামে পরিচিত কুখ্যাত সন্ত্রাসী জলিস আনসারী বৃহস্পতিবার (১৭ জানুয়ারী, ২০২০) মুম্বই থেকে নিখোঁজ হয়েছে। তার আজমির জেল থেকে  ২১ দিন প্যারোলে রেখে দেওয়া হয়েছিল। শুক্রবার (১৭ জানুয়ারী, 2020), অর্থাৎ তার প্যারোল সময়কাল আজ শেষ হচ্ছিল এবং তাকে আজমির জেলে পৌঁছাতে হয়েছিল।

বিকেলে তার ছেলে জায়েদ বাবার অন্তর্ধানের অভিযোগ দায়ের করে। অভিযোগ অনুসারে, জলিস আনসারি তাড়াতাড়ি উঠে পরিবারকে নামাজ পড়তে বলে চলে যান। কিন্তু ফিরে আসেনি। জায়েদের অভিযোগে পুলিশ নিখোঁজ হওয়ার মামলা করেছে। মুম্বই পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ এবং মহারাষ্ট্র এর সন্ত্রাসবাদ বিরোধী স্কোয়াড তাকে খুঁজছে।

মামলার তথ্য প্রদান করে এক কর্মকর্তা বলেন, প্যারোল চলাকালীন আনসারিকে প্রতিদিন সকাল সাড়ে দশটা থেকে বারোটার মধ্যে আগ্রিপদা থানায় আসতে বলা হয়েছিল। তবে বৃহস্পতিবার নির্ধারিত সময়ে তিনি পৌঁছাননি। তিনি জানান, বিকেলে আনসারীর ৩৫ বছরের ছেলে জায়েদ আনসারী থানায় পৌঁছে বাবার নিখোঁজ হওয়ার বিষয়ে অভিযোগ দায়ের করেন। যার পর থেকে মহারাষ্ট্রে সরকারের উপর প্রশ্নঃ উঠতে শুরু হয়েছে।

তাৎপর্যপূর্ণভাবে, আনসারী আগ্রিপদা থানার মোমিনপুরের বাসিন্দা এবং আজমির বোমা বিস্ফোরণ মামলায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ভোগ করছেন। এ ছাড়াও তিনি দেশের বিভিন্ন স্থানে বহু বিস্ফোরণে জড়িত।পুলিশ জানিয়েছে আনসারিকে রাজস্থানের আজমের কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে ২১ দিনের জন্য প্যারোলে মুক্তি দেওয়া হয়েছিল, এই শর্তে যে তাকে প্রতিদিন দশ থেকে 12 টার মধ্যে হাজির হতে হবে। তবে গত বুধবার পর্যন্ত এই প্রক্রিয়া অব্যাহত ছিল। সে থানায় যাওয়া অব্যাহত রেখেছিল, তবে বৃহস্পতিবার তার ছেলে থানায় পৌঁছে তাকে জানায় যে জলিস নিখোঁজ। এর পরে পুলিশ তার নিখোঁজ হওয়ার প্রতিবেদন দায়ের করে তদন্ত শুরু করে।