নতুন খবরভারতবর্ষ

জয় শ্রী রাম শ্লোগান দেওয়ায় সেনা জওয়ানকে মারধর করলো কট্টরপন্থীরা! ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর দায়ের হলো মামলা।

উত্তরপ্রদেশের আউরিয়া জেলায় একটা দুর্ভাগ্যজনক ঘটনা সামনে এসেছে। আউরিয়ার মুসলিম বহুল এলাকায় এক সেনা জওয়ান গণপিটুনির শিকার হয়েছেন। শুধুমাত্র জয় শ্রী রাম বলার কারণে এলাকার লোকজন সেনা জওয়ানের উপর আক্রমন করে দেয়। সেনা জওয়ানকে মারধরের সেই ভিডিও এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। ভিডিও দেখার পর পুলিশ একশন নিয়েছে এবং বেশকিছু জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। ভাইরাল হওয়া ভিডিও থেকে কট্টরপন্থীদের চিহ্নিত করে তাদের গবিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে পুলিশ।

আউরিয়ার জেলার সদর কোতয়ালী অঞ্চল শহরটি খানপুর মুসলিম অধ্যুষিত অঞ্চল যেখানে ফৌজির একটি প্লট রয়েছে যা নির্মাণাধীন রয়েছে। ঘটনা অনুযায়ী জওয়ান তার রাইফেল ও কার্তুজ নিয়ে প্লটটিতে যাচ্ছিলেন। তারপরে এলাকার কট্টরপন্থীরা জওয়ানকে থামিয়ে তার বিরুদ্ধে আপত্তিকর স্লোগান দেওয়ার অভিযোগ তোলে। এরপর সেনা জওয়ান বলেন যে তিনি কোনো ভুল করেননি। এর পরেই লোকজন তাকে মার ধর শুরু করে।

সেনা জওয়ান অভিযোগ করেছেন, জয় শরী রাম বলার কারণে এলাকার কিছু লোক বেরিয়ে এসে প্রথমে তাকে গালিগালাজ করে। এরপর গলির প্রতিবাদ করায় তারা মারপিট শুরু করে দেয়। অন্যদিকে কট্টরপন্থীরা অভিযোগ তুলেছে যে সেনা জওয়ান মদ্যপান করেছিল এবং জয় শ্রী রাম শ্লোগান দিচ্ছিল। সেই কারণে তারা ভিড় জমা করে মারধর করেছে।

জওয়ানের অভিযোগ, কট্টরপন্থীরা তাকে ঘিরে ফেলে এবং মারধর করে এবং রাইফেল, নগদ টাকা, মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে যায়। সিও সিটি সুরেন্দ্র নাথ সিংহ বলেছিলেন- বিষয়টি ৬ জানুয়ারির। জওয়ানের কাছে লাইসেন্সেধারী অস্ত্র ও কার্তুজ ছিল। জওয়ানকে কারা মারধর করেছে তার বিস্তারিত পুলিশের কাছে ছিল না। তবে ভিডিও ভাইরাল হওয়ার পর পুরো ঘটনার পর্দাফাঁস হয়েছে।

Back to top button
Close