Press "Enter" to skip to content

সাত মাসে তিনটি প্রতিশ্রুতি পালন মোদী সরকারের, এবার আরেকটি বড় সিদ্ধান্ত নিয়ে শুরু হল কাজ

শেয়ার করুন -

লোকসভা নির্বাচনের সময় নরেন্দ্র মোদীর (Narendra Modi) নেতৃত্বাধীন ভারতীয় জনতা পার্টি (BJP) নিজেদের ঘোষণা পত্রে যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল, সেগুলোর মধ্যে তিনটি প্রতিশ্রুতি বিগত সাত মাসে পালন করা হয়েছে। মোদী সরকার (Modi Sarkar) নিজের দ্বিতীয় কার্যকালে জম্মু কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা সমাপ্ত করা, নাগরিকতা সংশোধন বিল পাশ করানো আর তিন তালাকের বিরুদ্ধে আইন আনার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল। এই তিনটি প্রতিশ্রুতি পূরণ করার পর এবার মোদী সরকার খুব শীঘ্রই ইউনিফর্ম সিভিল কোড (Uniform civil code) আর জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ আইন নিয়ে কাজ শুরু করেছে।

বুধবার রাজ্যসভায় নাগরিকতা সংশোধন বিল নিয়ে চর্চা করার সময় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ বলেন, মোদী সরকার নিজেদের ঘোষণা পত্রে এই বিলের কথা বলেছিল। উনি বলেন, অনেকেই আমাদের উপরে ভোট ব্যাঙ্কের রাজনীতি করার অভিযোগ তুলেছে, কিন্তু আমরা তাঁদের বলতে চাই নির্বাচনী ঘোষণা পত্রে সরকারের নীতির ঘোষণা করা হয়। জনতা নির্বাচনী ঘোষণা পত্রে বিশ্বাস করেই সরকার নির্বাচন করে।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ (Amit Shah) বলেন, নির্বাচনের আগেই আমরা জনতার সামনে নাগরিকতা সংশোধন বিল আনার প্রস্তাব দিয়েছিলাম, জনতা সেটিকে সমর্থন করেছিল। উনি বলেন, জনতার আদেশের থেকে বড় কিছুই না। যদিও, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর রাজ্যসভায় দেওয়া বয়ানের পর কংগ্রেস নেতা আনন্দ শর্মা আপত্তি জাহির করেছিলেন, আর বলেহচিলেন দলের ঘোষণা পত্র সংবিধানের উপরে হয়না। উনি বলেন, আমরা সবাই সংবিধানের শপথ নিয়েছি, আর সংবিধানই সবার উপরে।

মোদী সরকার নিজেদের নির্বাচনী ঘোষণা পত্রে দেওয়া প্রতিশ্রুতির মধ্যে তিনটি পূরণ করে ফেলেছে। এবার সবার নজর ইউনিফর্ম সিভিল কোড আইনে টিকে রয়েছে। প্রসঙ্গত, বিজেপি নিজেদের নির্বাচনী ঘোষণা পত্রে এক দেশ এক আইনের উল্লেখ করেছিল। বিজেপি ঘোষণা পত্রে বলেছিল যে, যতদিন ভারত সমান নাগরিক আইন আপন না করে নেবে, ততদিন লিঙ্গ বৈষম্য থাকবে।

দেশের বর্ধিত জনসংখ্যা চিন্তার বিষয় হয়ে চলেছে। বিজেপি নেতাদের সাথে সঙ্ঘের নেতারা মোদী সরকারের কাছে দাবি করেছে যে, তিনি নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি পূরণ করার সাথে সাথে যেন জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ আইনেও ধ্যান দেন। বিজেপি নেতারা জানান আমরা আশা করছি যে, সরকার এই বিল নিয়ে খুব শীঘ্রই বড় সিদ্ধান্ত নেবে।