নতুন খবরভারতবর্ষ

স্বামী বিবেকানন্দ ও বেলুড় মঠের সাথে পুরানো সংযোগ রয়েছে প্রধানমন্ত্রী মোদীর! তাই আবারও মঠে এলেন প্রধানমন্ত্রী।

() খুব কম বয়সে বাড়ি থেকে বেরিয়ে গিয়ে সন্ন্যাস গ্রহণ করেছিলেন এবং সমাজের জন্য নিজেকে নিয়োজিত করেছিলেন। উনার সামাজিক কাজ বিশ্বের উপর যে প্রভাব ফেলেছিল তা কারোর থেকে গোপন নয়। পুরো বিশ্ব যখন ভারতের ও সনাতন ধর্মের মহিমা ভুলে গেছিল। তখন স্বামী বিবেকানন্দ ধর্ম সম্মেলনে ভারত ও সনাতনের মহিমা তুলে ধরেছিলেন। জানিয়ে দি, স্বামী বিবেকানন্দকে আদর্শ করে দেশে অনেক বড়ো ব্যক্তিত্ব জন্ম নিয়েছেন। এমনকি নেতাজি সুভাষ চন্দ্র বসুও স্বামী বিবেকানন্দকে নিজের আদর্শ মানতেন।

এখন উল্লেখযোগ্য বিষয় হলো দেশের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর () আদর্শ হলেন স্বামী বিবেকানন্দ। অনেকের ধারণা প্রধানমন্ত্রী মোদীর আদর্শ হলেন গান্ধী বা বল্লভ ভাই প্যাটেল বা অন্য কেউ। তবে যা যাই ধারণা থাকুক না কেন প্রধানমন্ত্রী মোদীর আদর্শ হলেন স্বামী বিবেকানন্দ।

স্বামী বিবেকানন্দ তার ভাষণে ‘ভাই ও বোনেরা’ কথাটি ব্যাবহার করতেন। আর নরেন্দ্র মোদীও তার ভাষণে ভাই ও বেহেনো উক্তি ব্যাবহার করেন। মুখ্যমন্ত্রী থাকা কালীন সময়েও বেলুড় মাঠে আসতেন। তার আগেও সন্ন্যাস গ্রহণের জন্য রামকৃষ্ণ মিশনের সান্নিধ্যে এসেছিলেন। তবে সেই সময় নরেন্দ্র মোদীকে পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল উনার কাজ হলো জনগণের মধ্যে থেকে সেবা করা, নির্জনে থেকে নয়।

এখন নরেন্দ্র মোদী আরো একবার এসেছেন। তবে বিষয়টিকে রাজনৈতিক দৃষ্টিকোন থেকে নেওয়া হলেও। ঘটনাটির সাথে প্রধানমন্ত্রী মোদীর নিজস্ব ব্যাক্তিগত আধ্যাতিক জীবন জড়িয়ে রয়েছে। প্রসঙ্গত জানিয়ে দি, কাল স্বামী বিবেকানন্দের জন্ম জয়ন্তী। প্রধানমন্ত্রী মোদীও বেলুড়ে থেকে ধ্যান যোগ করবেন।

Back to top button
Close