নতুন খবরভারতবর্ষ

মোহাম্মদ সামির মেয়ে করলেন সরস্বতী পুজো! কট্টরপন্থীরা বললো- জীবনে জান্নাত লাভ করবে না

দেবী স্বরস্বতী বিদ্যার দেবী, বুদ্ধির দেবী। হিন্দু ধর্ম অনুসারে দেবী বাকদেবী অর্থাৎ কথা বলার শক্তি দেন মা স্বরস্বতী। দেশ জুড়ে সমস্ত মানুষ এই দেবীর আরাধনায় যুক্ত হয়।বাচ্চা থেকে শুরু করে বড়রাও দেবী কে পুজো করেন। কিন্তু ভারতবর্ষের মত দেশও আজ ও পুজো করতে গেলে আক্রমণের শিকার হতে হয় অনেক মানুষ কে। আজকে স্বরস্বতী পুজোর দিন মোহাম্মদ সামি (Mohammed Shami) এর মেয়ের এক ছবি আপলোড হয়েছে সেখানে তার মেয়েকে স্বরস্বতী পুজো করতে দেখা গেছে।

এই ছবিতে সামি তার মেয়েকে দেখে লিখেছে খুব ভালো লাগছে তোমায় ।ভগবান তোমার মঙ্গল করুক। এর পর ইসলামী মৌলবাদী সংগঠন ও তার চিন্তাধারার মানুষ সামির উপর আক্রমণ করে।কারণ হলো তার মেয়ে আয়রার ছবি। শামি সরস্বতী পূজা উপলক্ষে আয়রার একটি ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি বার্তা দিয়ে শেয়ার করেছেন। এতে কট্টরপন্থীরা ক্ষুব্ধ হয়। এটাকে ইসলামের বিরুদ্ধে আখ্যায়িত করে তারা শামিকে ও তার মেয়েকে মূর্তি পূজা না করতে বলেন। এর সাথে কট্টরপন্থীরা হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন যে, মুসলিম হয়ে ইবাদত করলে জাহান্নামে যাবে।

এদিকে যখন সামির মেয়ে আইরার ছবি দেখে সাধারণজনেরা খুব প্রশংসা করছে। অনেকে লিখেছে তাকে প্রকৃত স্বরস্বতী মনে হচ্ছে এবং সামি কে ধন্যবাদ দিয়েছে তার মেয়েকে এইরকম একটা সুশিক্ষা দেবার জন্য। অন্যদিকে ইসলামি মৌলবাদীরা এই ছবি দেখে অভিযোগ করছে, সামি মতো মুসলমানদের কারণে ভারতের মুসলমানরা ধীরে ধীরে হিন্দু হয়ে যাচ্ছে। কট্টরপন্থীদের দ্বারা শামিকে প্রশ্ন করা হয়েছে, তিনি যখন মুসলিম, তখন তাঁর মেয়ে কীভাবে হিন্দু হলেন? এ ছাড়া তাকে তার নাম থেকে মোহাম্মদ মুছে ফেলারও পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

এই প্রথমবার নয় যে ইসলামিক মৌলবাদীরা শামিকে ট্রোল করেছে। 2018 সালের শুরুতে, শামিকে নববর্ষের শুভেচ্ছা জানাতে শিব লিঙ্গের একটি ছবির ছিল। এর পাশাপাশি স্ত্রীর সঙ্গে ছবি তুলে সোশ্যাল মিডিয়ায় দেওয়ার জন্যও কট্টরপন্থীদের কটাক্ষের শিকার হয়েছেন তিনি। যদিও তিনি মৌলবাদিদের বারবার সেই কথা উপেক্ষা করে ভারতীয় সংস্কৃতিকে উপরে ধরে রেখেছেন।

Related Articles

Back to top button