Press "Enter" to skip to content

“হিন্দু রাষ্ট্রের অর্থ মুসলিম বিহীন দেশ নয়”- মুসলিম সমাজের ভুল ধারণা ভাঙতে মাঠে নামছে RSS

শেয়ার করুন -

হিন্দুত্বের চিন্তাধারা কট্টরতা, ধার্মিক উন্মাদের বিরুদ্ধে হলেও কোনো ধর্মের বিরুদ্ধে নয়। এই ধারণকে মুসলিমদের মধ্যে পৌঁছে দিতে মাঠে নামছে রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সঙ্ঘ। আসলে RSS ভারতবর্ষের একটা সামাজিক সংগঠন। তবে ভারতবিরোধী কিছু শক্তির অপপ্রচারের দরুন এবং বেশকিছু রাজনৈতিক দলের ভিত্তিহীন অভিযোগের দরুন মুসলিম সমাজে RSS সম্পর্কিত ভুল ধারনা জন্মেছে। আর এই ভ্রান্তি দূর করার জন্যেই এখন কোমর বেঁধে মাঠে নামছে আরএসএস।

বাংলায় অনুশীলন সমিতিতে যোগদান দেওয়া ডক্টর কে.বি. হেড গেওয়ার রাষ্ট্রবাদী চিন্তাধারাকে বাস্তব রূপ দেওয়ার জন্য এই সংগঠনের নির্মাণ করেছিলেন। যা ২০২৫ সালে ১০০ বছর পূর্ন করবে। লক্ষণীয় বিষয় যে, মোহনদাস করমচাঁদ গান্ধীর মৃত্যুর পর থেকে লাগাতার বহু ভুয়ো অভিযোগ এই সংগঠনের উপর চাপিয়ে দেওয়ার চেষ্টা হয়েছে। RSS কে ব্যান করার জন্যও বহুরকম রাজনৈতিক ষড়যন্ত্র করা হয়েছে। তবে রাষ্ট্রবাদের অফুরন্ত শক্তি এই সংগঠনকে বছরের পর বছর আরো শক্তিশালী করে তুলেছে।

তবে লাগাতার ষড়যন্ত্রের দরুন যে ক্ষতি হয়েছে তা এই যে, মুসলিম সমাজের একাংশ হিন্দুত্বের ধারণকে ভুলভাবে গ্রহণ করেছে। তাই এখন আরএসএস এর চিন্তাধারা মুসলিমদের মধ্যে পৌঁছে দিতে উর্দু ভাষায় মোহন ভাগবতের বই প্রকাশিত করেছে। ‘ভবিষ্য কা ভারত’ শিরোনামে মোহন ভাগবতের বক্তৃতার উপর যে বই রয়েছে তার উর্দু সংকলন মুস্তাকবিল কা ভারত নামের বই প্রকাশন করা হয়েছে।

মোহন ভাগবতের বইয়ের অনুবাদকারী ডঃ আকিল আহমেদ বলেছেন যে, হিন্দুত্ব বলতে হিন্দু ধর্ম গ্রহণ করা বোঝায় না তা মোহন ভাগবত তার বক্তব্যে স্পষ্ট বলেছেন। শাখায় যোগদানের জন্যেও মুসলিমদের অনুরোধ করেছেন তিনি। RSS সম্বন্ধে মুসলিমদের ভ্রান্তি ধারণা ভাঙতে এই উর্দু সংকলন খুবই প্রায়জন বলে মত প্রকাশ করেন আকিল আহমেদ।

জানিয়ে দি, মোহন ভাগবত স্পষ্ট ভাষায় বলেছেন হিন্দু রাষ্ট্রের অর্থ শুধুমাত্র একটা ধর্ম বা মুসলিমদের বাদ দিয়ে দেওয়া নয়। এক্ষত্রে হিন্দু বলতে ভারতীয়। ভাগবতের মতে যিনি নিজেকে ভারতীয় বলে মনে করেন তিনি হিন্দু। উল্লেখ্য, RSS প্রমুখের এই চিন্তাধারাকে মুসলিম সমাজের মধ্যে ছড়িয়ে ভ্রান্তি দূর করার কাজে নেমেছে এই সংগঠন।