Press "Enter" to skip to content

ব্রেকিং খবরঃ আগামী ৩রা মে পর্যন্ত লকডাউন বাড়িয়ে দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

শেয়ার করুন -

নয়া দিল্লীঃ আজ প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী (narendra modi) সকাল ১০ টা থেকে জাতীর উদ্দেশ্যে ভাষণ দেওয়া শুরু করেছেন। দেশে বেড়ে চলা করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের কথা মাথায় রেখে গোটা দেশে জারি ২১ দিনের লকডাউনের আজ শেষ দিন। আর আজ শেষ দিনে লকডাউন বাড়ানোর নিয়ে উনি বড় ঘোষণা করতে পারেন। আপনাদের জানিয়ে দিই, গোটা ভারতে এখনো পর্যন্ত ১০ হাজার ৪৫৩ জন এই মারক ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

মোট আক্রান্তদের মধ্যে ১ হাজার ১৯৩ জন ইতিমধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছে। এছাড়াও ৩৫৮ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে খবর। গোটা দেশের মধ্যে মহারাষ্ট্র সবথেকে বেশি এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। এখনো পর্যন্ত মোট ২ হাজার ৩৩৪ জন মহারাষ্ট্রে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তাঁদের মধ্যে ২২৯ জন সুস্থ হয়ে উঠেছে আর ১৬০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এরপর দ্বিতীয় স্থানে আছে দিল্লী। সেখানে ১৫১০ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন এদের মধ্যে ৩১ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন। আর ২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এবং তৃতীয় স্থানে আছে তামিলনাড়ু। সেখানে ১১৭৩ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। মোট আক্রান্তদের মধ্যে ১১ জন মারা গেছেন। আর ৫৮ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। এরপর রাজস্থান, মধ্যপ্রদেশ এবং তেলেঙ্গানা আছে।

ভাষণ শুরু হওয়ার প্রথমে তিনি গোটা দেশবাসীকে বাবা সাহেব আম্বেদকর এর জন্মজয়ন্তী এবং পয়লা বৈশাখ এর শুভেচ্ছা জানান। উনি লকডাউনের কথা উল্লেখ করে বলেন, আমাদের দেশে যখন আক্রান্তদের সংখ্যা মাত্র ৫০০ ছিল তখনই আমরা দেশে লকডাউন জারি করেছিলাম। উনি বলেন, এই সময় অন্য দেশের সাথে তুলনা করা উচিৎ না। তাই বিশ্বের প্রগতিশীল দেশ গুলোর তুলনায় ভারতে করোনার পরিস্থিতি একটু হলেও ভালো।

উনি বলেন, আমাদের দেশে লোকসান কি করে কমবে? এই নিয়ে আমরা দেশের সমস্ত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সাথে পরামর্শ করি। তাঁদের পরামর্শ অনুযায়ী এবং দেশের জনগণও চাইছে যে দেশে লকডাউন বাড়বে। উনি, ঘোষণা করে বলেন, ভারতে আগামী ৩রা মে পর্যন্ত লকডাউন জারি থাকবে। এই লকডাউনে সমস্ত অনুশাসন সেভাবেই পালন করতে হবে, যেভাবে আমরা পালন করে এসেছি।