Press "Enter" to skip to content

ভারত জল বন্ধ করে দেওয়ার পর আর্তনাদ পাকিস্তানের, সাহাজ্যের আর্তি নিয়ে গেলো আমেরিকায়

শেয়ার করুন -

ভারতের (India) সাথে সিন্ধু জল চুক্তি (Indus River) আর এর সাথে জড়িত বিতর্ক নিয়ে কথা বলার জন্য পাকিস্তানের (Pakistan) উচ্চস্তরীয় প্রতিনিধি মণ্ডল রবিবার আমেরিকার উদ্দেশ্যে রওনা দেন। পাকিস্তানি মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, সিন্ধু জল কমিশন সৈয়দ মেহর আলী শাহ এর নেতৃত্বে প্রতিনিধি মণ্ডলের আলোচনার সময় ১৯৬০ সালে করা চুক্তি আমল করার জন্য সম্পূর্ণ ভাবে জোর দেওয়া হবে। প্রতিনিধি মণ্ডল পাঁচ দিন আমেরিকায় (America) থাকবে। আর সেই সময় ওনারা ভারতের দুটি জল বিদ্যুৎ পরিকল্পনা কিষাণগঙ্গা  আর রাতলের ডিজাইন নিয়ে নিজেদের চিন্তা নিবারণের জন্য ন্যায় বিচারের দাবি তুলবে।

রিপোর্টে বলা হয়েছে যে পাকিস্তান ভারত দ্বারা তৈরি করা ৩৩০ মেগাওয়াটের কিষাণগঙ্গা আর ৮৫০ মেগাওয়াটের রাতলে জল বিদ্যুৎ পরিকল্পনায় আপত্তি জাহির করেছে। পাকিস্তান অনুযায়ী, এই দুটি জল বিদ্যুৎ পরিকল্পনা দ্বিপাক্ষিক চুক্তি বিরোধী। ভারতের সাথে পাকিস্তানে উত্তেজনা বাড়ার পর নিজেদের ক্ষেত্র থেকে বয়ে চলা জল পাকিস্তানে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে। এর আগে এই জল কোন বাধা ছাড়াই পাকিস্তানে চলে যেত।

১৪ই ফেব্রুয়ারি ২০১৯ এ জম্মু কাশ্মীরের পুলওয়ামায় পাক সমর্থিত জঙ্গি সংগঠন জইশ এ মোহম্মদ এক ভয়াবহ জঙ্গি হামলা চালায়। ওই হামলা ভারতের ৪০ জন জওয়ান শহীদ হয়েছিলেন। আর তারপর থেকে ভারত আর পাকিস্তানের মধ্যে উত্তজনা দিন দিন বেড়েই চলেছে। এরপর ঠিক ১৩ দিনের মাথায় ভারত পুলওয়ামা হামলার প্রতিশোধ নিতে পাক অধিকৃত কাশ্মীরের বালাকোটে এয়ার স্ট্রাইক করে। ভারতের এই এয়ার স্ট্রাইকে পাকিস্তানের অনেক ক্ষয়ক্ষতি হয়।

শুধু ভারত সরকার না, ভারতের জনতাও পুলওয়ামা হামলার প্রতিবাদে পাকিস্তানের সাথে সমস্ত ব্যাবসা বন্ধ করে দেয়, আর তারপর থেকে ভারত সরকারও পাকিস্তানে যাওয়া ভারতের নদীর জল আটকানো শুরু করে।