নতুন খবরভারতবর্ষ

করোনাতেও বন্ধ নেই পাকিস্তানের ষড়যন্ত্র! গ্রাম্য এলাকাকে নিশানা করে চলছে ব্যাপক ফায়ারিং

শ্রীনগরঃ গোটা বিশ্ব করোনায় আক্রান্ত, বাদ যায়নি প্রতিবেশী দেশ পাকিস্তানও (Pakistan)। কিন্তু এই মহামারীর মধ্যেও তাঁরা নিজেদের কুকীর্তি বন্ধ রাখেনি। আজ শুক্রবার জম্মু কাশ্মীরের নৌসেরা সেক্টরে পাকিস্তান ভারতীয় সেনার ছাউনির সাথে সাথে জনবহুল এলাকা গুলোকেও নিশানা বানায়। পাকিস্তানের গুলিতে কোন মানুষের প্রাণ না গেলেও, এক গৃহপালিত প্রাণীর প্রাণ গেছে। এছাড়াও গ্রাম্য এলাকায় অনেকের বাড়িতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। পাকিস্তানের এই কুকীর্তির মোক্ষম জবাব দিয়েছে ভারতীয় সেনা।

পাকিস্তানের তরফ থেকে করা এই যুদ্ধ বিরতি লঙ্ঘনের ফলে লাইন অফ কন্ট্রোল লাগোয়া ভবানি এলাকার অনেক ক্ষতি হয়। পাকিস্তানি সেনা সের, মকরি, নব কন্ডালি, খম্বা এলাকা গুলোকে নিশানা করে ব্যাপক গোলাগুলি করে।

আরেকদিকে, ভারত-পাকিস্তান আন্তর্জাতিক সীমা লাগোয়া হীরানগর এলাকায় গমের ফসল কাটার কাজ শুরু হয়ে গেছে। পাকিস্তান সেখানেও ব্যাপক গোলাগুলি চালায়। পাকিস্তানের এই বিনা প্ররোচনায় গুলি চালানোর কারণে কৃষকদের মধ্যে আতঙ্কের মহল সৃষ্টি হয়েছে।

ওই এলাকার কৃষকদের চিন্তা এখন একটাই, সেটা হল পাকিস্তানের ছোঁড়া গোলা-গুলি পাকা ফসলে পড়লে তাদের জমির ফসল নষ্ট হতে পারে! এই কারণে তাঁরা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ফসল কেটে নিতে চাইছে।

যদিও জেলার কমিশনার ওপি ভগত আর বিএসএফ এর উচ্চ আধিকারিকরা কৃষকদের আশ্বাস দেন যে, ১০ দিন পর্যন্ত সুরক্ষা বাঁধের কায করবে তাঁরা। ওই ১০ দিন তাঁরা নিজেরা সুরক্ষা দিয়ে কৃষকদের ফসল কাটতে সহায়তা করবে। কৃষকদের ওই ১০ দিনে পুরো কাজ মিটিয়ে নিতে বলা হয়েছে।

Back to top button
Close