আন্তর্জাতিকনতুন খবর

ভারতের হাতে নিজেদের জওয়ানদে পি’টা’নি খাওয়া থেকে বাঁচাতে মানুষের হাড় দিয়ে বিশেষ পোশাক বানাল চীন

নয়া দিল্লীঃ লাদাখ (ladakh) সীমান্তে ভারত (india) আর চীনের সেনার মধ্যে উত্তেজনা লাগাতার জারি আছে। আর এরমধ্যে এমন রিপোর্ট আসছে যেটা অবাক করা। প্রসঙ্গত, এর আগে বলা হয়েছিল যে চীনের জওয়ানরা লাদাখে LAC তে ভারতীয় জওয়ানদের উপর টপ সিক্রেট মাইক্রোওয়েভ হাতিয়ার দিয়ে হা’ম’লা করেছিল। এরপর আবার ভারতীয় সেনা দ্বারা হিমালয়ের সীমান্তের সমস্ত উঁচু শৃঙ্গে কবজা করেছিল। কিন্তু দুই দেশের সেনার বরিষ্ঠ আধিকারিকরা এই তথ্য খারিজ করে দেন। আর এবার হিমালয়ের সীমান্ত থেকে এমন এক রিপোর্ট আসছে, যেটা আপনাকে বিস্মিত করে দেবে।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী, চীনের সেনার মুখপত্র গ্লোবাল টাইমস দাবি করেছে যে, চীনের জওয়ানরা এখন আইরন ম্যান হয়ে লড়বে। কারণ তাদের জন্য হাড় দিয়ে স্পেশ্যাল সুট বানানো হয়েছে। ওই রিপোর্টে বলা হয়েছে যে, দক্ষিণ পশ্চিম চীনের তিব্বতীয় এলাকায় যেই চীনা জওয়ানরা মোতায়েন আছে, তাদের আইরন ম্যানের মতো হাড় দিয়ে বানানো সুট দেওয়া হয়েছে। আর এই সুট গুলো খারাপ পরিস্থিতি আর উঁচু এলাকায় জওয়ানদের অনেক সাহাজ্য করবে। গ্লোবাল টাইমসে বলা হয় যে, এই বিশেষ সুট রেশনের যোগান, নজরদারি আর পেট্রোলিং করার জন্য খুবই সহযোগী।

চাইনা সেন্ট্রাল টেলিভিশনের (CCTV) রিপোর্টে বলা হয়েছে যে, এই সময় PLA এর জওয়ানরা নগরীতে মোতায়েন আছে, যেটা সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে পাঁচ হাজার মিটার উচ্চতায় অবস্থিত। এই জওয়ানরা হাড় দিয়ে বানানো বিশেষ সুটের ব্যবহার শুরু করে দিয়েছে। এই সুটের মাধ্যমে জওয়ানরা অনেক বেশি ওজন তুলতে সক্ষম। এর সাথে সাথে সুট তাদের কোমর আর পায়ে লাগা চোট গুলো থেকেও বাঁচাবে।

CCTV এর রিপোর্টে বলা হয়েছে যে, এর আগে চীনের জওয়ানদের খাবার এবং জল পৌঁছে দেওয়ার জন্য জিঞ্জিয়াং মিলিটারি কম্যান্ডের সাথে যুক্ত করা হয়েছিল। সেই সময় একজন জওয়ান প্রায় ২০ কেজি সামগ্রী নিয়েই পাহাড়ে চড়তে পারত। কিন্তু এখন এই নতুন সুটের কারণে সামগ্রীর সমস্ত ওজন পায়ের জায়গায় হাড়ের সুটে পড়ে, আর সেই কারণে অনেক বেশি ওজন তাঁরা বহন করতে পারে। এই নতুন সুট শুধু ওজন বেশি নিয়ে যেতেই সাহাজ্য করবে না। এই সুট বিদেশী জওয়ানদের হাতে মা’র খাওয়ার থেকে চীনা জওয়ানদের বাঁচাবেও।

Related Articles

Back to top button