Press "Enter" to skip to content

ভুল করে ভারতে ঢুকে পড়েছিল নাবালক পাকিস্তানি! গরম জামা, জুতো আর খাবার দিয়ে দেশে পাঠাল সেনা

শেয়ার করুন -

শ্রীনগরঃ পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরের বাসিন্দা আলী হায়দার ভুল করে সীমান্ত পার করে জম্মু কাশ্মীর চলে এসেছিল। এরপর শুক্রবার তাকে উপহার দিয়ে পাকিস্তানে ফেত পাঠানো হয়। ১৪ বছর বয়সী হায়দার ভারতীয় সেনা আর স্থানীয় পুলিশের প্রশংসা করে বলে, ‘ওঁরা খুব ভালো।” ANI একটি ভিডিও পোস্ট করেছে যেখানে হায়দার বলছে, ‘আমি জঙ্গলের রাস্তা দিয়ে যাচ্ছিলাম, তখন ভুল করে কাশ্মীরে ঢুকে পড়ি।” এরপর সে বলে কীভাবে তাকে ভারতীয় সেনা আর স্থানীয় পুলিশ ঠাণ্ডা থেকা বাঁচতে জামা কাপড়, জুতো দেয় আর খেতেও দেয়। হায়দার বলে এরা খুব ভালো।

গত মাসেও এরকম ঘটনা ঘটেছিল। তখন পাকিস্তান অধিকৃত কাশ্মীরের দুই নাবালিকা বোন ভুল করে নিয়ন্ত্রণ রেখা পার করে জম্মু কাশ্মীরের পুঞ্ছ এলাকায় চলে এসেছিল। এরপর তাঁদের গ্রেফতার করা হয়েছিল। কিন্তু পরের দিন তাঁদের উপহার দিয়ে পাকিস্তানে ফেরত পাঠিয়ে দেওয়া হয়।

দুই বোনের পরিচয় লায়বা জুবের (১৭) আর সানা জুবের (১৩) বলে জানা গিয়েছিল। দুজনেই কহুটা তহসিল আব্বাসপুর গ্রামের বাসিন্দা। তাঁরা নিয়ন্ত্রণ রেখা দিয়ে জম্মু কাশ্মীরের পুঞ্ছ জেলায় ঢুকে পড়ে। সেনার জওয়ানরা তখনই দুই বোনকে গ্রেফতার করে। দুই নাবালিকা বোনকে জিজ্ঞাসাবাদ করার পর সেনা তাদের পুলিশের হাতে তুলে দেয়।

বাড়ি ফেরার পর লায়বা জুবের ভারতীয় সেনার আর ভারতকে ধন্যবাদ জানায়। সে একটি ভিডিও বার্তার মাধ্যমে জানায়, ‘আমরা রাস্তা হারিয়ে ফেলেছিলাম আর ভুলবশত ভারতীয় সীমা পার করে ভারতে ঢুকে পড়ি। আমরা ভয় পাচ্ছিলাম যে, সেনার জওয়ানরা আমাদের মারধোর করবে। কিন্তু তাঁরা সবাই আমাদের সাথে খুব ভালো ব্যবহার করে। ওঁরা আমদের খেতে দেয়, আর থাকার জন্য জায়গাও দেয়। সবাই আমাদের ফেরত পাঠানোর জন্য লাগাতার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছিল। ওদের ব্যবহার খুব ভালো ছিল। আমরা প্রথমে ভেবেছিলাম এরা আমাদের বাড়ি যেতে দেবে না, কিন্তু আজ আমরা বাড়ি ফিরে যাচ্ছি। এরা সত্যিই খুব ভালো।”