Press "Enter" to skip to content

উপদ্রবিদের গুলি খেয়েও প্রাণে বাঁচলেন জওয়ান, মানি ব্যাগের জন্য দ্বিতীয় জন্ম পেলেন তিনি

শেয়ার করুন -

উত্তর প্রদেশের ফিরোজাবাদের হিংসায় এসএসপির সাথে থাকা জওয়ান বিজেন্দ্র সিংহ ১৫ ঘণ্টা পর শনিবার নিজের উর্দি খোলেন। উর্দি খোলার পরেই উনি আশ্চর্য হয়ে যান, কারণ লাগাতার ১৫ ঘণ্টা ধরে উগ্রবাদি বিক্ষোভকারীদের শান্ত করতে ব্যাস্ত থাকা জওয়ানের মানি ব্যাগ তাঁর জীবন রক্ষা করে। গুলি বুলেট প্রুফ জ্যাকেট ভেদ করে মানি ব্যাগে গিয়ে আটকে যায়। গুলি লাগার প্রায় ১৫ ঘণ্টা পর উর্দি খোলার সময় সে টের পায় যে, তাঁকে লক্ষ্য করে গুলি মারা হয়েছিল।

মানি ব্যাগে গুলি আটকেছে দেখে জওয়ান অবাক হয়ে যান। শনিবার এই ঘটনার ব্যাপারে ডিএম আর এসএসপিকে জানান তিনি। জওয়ান বিজেন্দ্র সিং এসএসপি অফিসে মোতায়েন ছিলেন। শুক্রবার জওয়ান বিজেন্দ্র সিং এসএসপি সচিন্দ্র প্যাটেলের দেহরক্ষী হিসেবে মোতায়েন ছিলেন।

জুম্মার নামাজের পর শুরু হওয়া এই উপদ্রবে এসএসপি সচিন্দ্র প্যাটেলের দেহরক্ষী বিজেন্দ্র সিং অন্যান্য জওয়ানদের সাথে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন। জওয়ান সুরক্ষার জন্য বুলেটপ্রুফ জ্যাকেট করেছিলেন। অশান্তির সময় উপদ্রবিদের তরফ থেকে পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি চালানো হয়। সেই সময় একটি গুলি জওয়ান বিজেন্দ্র সিং এর বুলেটপ্রুফ জ্যাকেট ভেদ করে উর্দির পকেটে থাকা মানি ব্যাগে গিয়ে আটকে যায়।

যখন জওয়ানের উপর গুলি চালানো হয়েছিল, তখন তিনি এই ব্যাপারে কিছুই জানতেন না। ঘটনার প্রায় ১৫ ঘণ্টা পর জওয়ান নিজের উর্দি খোলার সময় পকেটে একটি ছিদ্র দেখতে পান। তখন সেই পকেটে থাকা মানি ব্যাগ খুলে দেখেন, সেখানি একটি গুলি আটকে আছে। এই ঘটনার ব্যাপারে উনি এসএসপি সচিন্দ্র প্যাটেলকে জানান তিনি। জওয়ান বলেন, এটা তাঁর দ্বিতীয় জন্ম, মানি ব্যাগ না থাকলে ওই গুলি তাঁর জীবন কেড়ে নিতে পারত।