নতুন খবররাজনীতি

রাহুল বাবা যদি আইন না পড়ে থাকেন, তাহলে আমি ইতালীয় ভাষায় অনুবাদ করে পাঠিয়ে দিচ্ছিঃ অমিত শাহ

নাগরিকতা আইন নিয়ে বিরোধীরা লাগাতার মোদী সরকারের বিরুদ্ধে প্রদর্শন করে চলেছে। আর এই কারণে বিজেপি মানুষকে এই আইন নিয়ে জাগরুক করার জন্য জন জাগরণ অভিযান চালাচ্ছে। আর আর এরকমই এক অভিযান হল কংগ্রেস শাসিত রাজস্থানের যোধপুরে। সেখানে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী বিরোধীদের উপর তীব্র আক্রমণ করেন। নিজের ভাষণে কংগ্রেসের সভাপতি রাহুল গান্ধীর উপর আক্রমণ করে বলেন, যদি আপনি এই আইন পড়ে থাকেন তাহলে চর্চার জন্য চলে আসুন, আর যদি না পড়ে থাকেন তাহলে ইতালীয় ভাষায় অনুবাদ করে পাঠাতে পারি।

অমিত শাহ সাভারকারের উপর কংগ্রেসের আপত্তি জনক মন্তব্য নিয়ে বলেন, ভোট ব্যাংকের রাজনীতি করার জন্য কংগ্রেস পার্টি বীর সাভারকারের মতন মহান ব্যাক্তিদের বিরুদ্ধে বিতর্কিত মন্তব্য করছে। কংগ্রেসের লজ্জা পাওয়া উচিৎ এরকম বিতর্কিত মন্তব্য করার জন্য। এই জন জাগরণ সভা থেকে তিনি স্পষ্ট বুঝিয়ে দেন যে, সরকার নাগরিকতা আইন নিয়ে এক ইঞ্চি পিছু হটবে না। উনি কংগ্রেসের উপর হামলা করে বলেন, কংগ্রেস পার্টি ের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে।

উনি বলেন, কংগ্রেস আর কংগ্রেসের সহযোগী দল গুলো মিলে দেশের মানুষকে বিভ্রান্ত করছে। উনি বলেন, যে যাই করুক না কেন, সরকার নাগরিকতা আইন নিয়ে এক ইঞ্চিও জমি ছাড়বে না। উনি বলেন, বিজেপি বিরোধী সবাই এক হলেও, সরকার তাঁদের অবস্থান বদলাবেনা। যোধপুরে জন জাগরণ অভিযানে জনসভায় ভাষণ দেওয়ার সময় এই কথা বলেন অমিত শাহ।

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী অমিত শাহ বলেন, ‘মারোয়ারদের এই ভূমি কখনো শত্রুদের সামনে মাথা নোয়ায়নি।” অমিত শাহ বলেন, নাগরিকতা আইনের সমর্থনে দেশে জন জাগরণ অভিযান চালানো হচ্ছে। এই আইনের বিরোধিতা ভোট ব্যাংকের রাজনীতি করা মানুষ গুলোই করছে। আমি দেশের জনতার সামনে আমাদের পক্ষ রাখছি।

অমিত শাহ বলেন, আমি বিরোধীদের চ্যালেঞ্জ জানাচ্ছি, ওনারা যদি এই আইন পড়ে থাকেন তাহলে এই আইন নিয়ে আলোচনা সভায় আসুক, এই আইনে কোথাও কারোর নাগরিকতা কেড়ে নেওয়ার কথা নেই। বিরোধীরা অহেতুক মানুষদের মধ্যে বিভ্রান্ত ছড়াচ্ছে। অমিত শাহ বলেন, এই আইন কারোর নাগরিকতা কেড়ে নেওয়ার জন্য না, এই আইন ধর্মের কারণে তিনটি মুসলিম প্রধান দেশে প্রতারিত হওয়া সংখ্যালঘুদের নাগরিকতা দেওয়ার জন্য।

Back to top button
Close