নতুন খবররাজনীতি

দিল্লীর একমাত্র মুখ্যমন্ত্রী কেজরীবাল, যিনি চার দেওয়ালে শপথ না নিয়ে বারবার বেছে নেন রামলীলা ময়দানকে!

আম আদমি পার্টির (AAP) রাষ্ট্রীয় সংযোজক তথা দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরীবাল (Arvind Kejriwal) প্রথম আর একমাত্র মুখ্যমন্ত্রী, যিনি শপথ গ্রহণ সমারোহে ঐতিহাসিক রামলীলা ময়দানকে (Ramlila Maidan) প্রাধান্য দিয়েছেন। ওনার আগে যারা দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী হয়েছিলেন, তাঁরা রাজভবনে মুখ্যমন্ত্রী পদের শপথ গ্রহণ করেছিলেন।

রাষ্ট্রীয় রাজধানীর এই জায়গা কেজরীবালের একবারে মনের কাছে। কারণ এই জায়গাতেই ২০১১ সালে কেজরীবাল আন্না হাজারের ইন্ডিয়া এগেইনস্ট কোরাপশন আন্দোলনে যুক্ত হয়েছিলেন। এরপর ২০১২ সালে এই আন্দোলনকে হাতিয়ার করে কেজরীবাল রাজনীতিতে পা রেখেছিলেন।

২০১৩ সালে দিল্লীতে নির্বাচন হয়েছিল, তখন কেজরীবাল একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পাওয়ার কারণে কংগ্রেসের সাহায্যে মুখ্যমন্ত্রী হয়েছিলেন। উনি ২৮ ডিসেম্বর রামলীলার ময়দানে শপথ নিয়েছিলেন। যদিও মাত্র ৪৯ দিন পর ১৪ই ফেব্রুয়ারি ২০১৪ সালে উনি ইস্তফা দিয়ে দেন।

এরপর ২০১৫ সালে দিল্লীতে আবারও নির্বাচন হয়। তখন তিনি একক সংখ্যাগরিস্থতায় জয় হাসিল করে ১৪ই ফেব্রুয়ারি ২০১৫ সালে দ্বিতীয়বার দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন। কেজরীবাল এবার তৃতীয়বার দিল্লীর মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিচ্ছেন। আর শপথ নেওয়ার জন্য উনি দিল্লীর রামলীলা ময়দানকেই বেছে নিয়েছেন।

কেজরীবাল আর আম আদমি পার্টি ছাড়াও রামলীলা ময়দান দেশের দিগগজদের উপস্থিতি আর ঐতিহাসিক ঘটনার প্রমাণ। নাম শুনেই বোঝা যায় যে, এই জায়গা রামলীলা নাটকের জন্য বিখ্যাত। রামলীলায় ভগবান রামের জীবন কাহিনীকে তুলে ধরা হয়। যদিও, এই ময়দান অতীতেও অনেক ঐতিহাসিক ভাষণের সাক্ষী ছিল।

ব্রিটেনের মহারানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ ভারতের প্রথম প্রধানমন্ত্রী জওহর লাল নেহরুর সাথে এই মাঠে ১৯৬১ সালে একটি সভায় অংশ নিয়েছিলেন।

Back to top button
Close