Press "Enter" to skip to content

নাগরিকতা আইনে এখনই কোন স্থগিতাদেশ নয়, জানিয়ে দিলো সুপ্রিম কোর্ট

শেয়ার করুন -

নাগরিকতা আইন (CAA )নিয়ে দায়ের ১৪০ টি পিটিশনে সুপ্রিম কোর্ট (Supreme Court) বুধবার সকাল থেকে শুনানি শুরু করেছে। এই শুনানিতে দুই পক্ষের উকিল নিজের মতামত পেশ করেন। প্রধান বিচারক এসএ বোবদে, জাস্টিস আবদুল নজির, জাস্টিস সঞ্জীব খান্না এর বেঞ্চ সমস্ত আবেদনের জবাব দেওয়ার জন্য কেন্দ্র সরকারকে চার সপ্তাহের সময় দিয়েছে।

প্রধান বিচারপতি এসএ বাবদে বলেন, কেন্দ্রের জবাবের পর পাঁচজন বিচারকের বেঞ্চ এই মামলায় শুনানি করবে, তখনই সুপ্রিম কোর্ট নির্ধারণ করবে, নাগরিকতা সংশোধনী আইনে স্থগিতাদেস আনা হবে কি না। এবার এই মামলায় চার সপ্তাহ পর শুনানি হবে। আর সেই দিনেই সংবিধানিক বেঞ্চ বানানো নিয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

শুনানির সময় বিরোধী পক্ষের আইনজীবী কপিল সিবাল নাগরিকতা আইন প্রক্রিয়াতে ছাড় দেওয়ার দাবি তোলেন। এরপর আদালত জানায় যে, একতরফা কোন সিদ্ধান্ত নেওয়া হবেনা। সমস্ত আবেদন শোনার পর সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। আপনাদের জানিয়ে রাখি ১৪০ টির বেশি আবেদন দাখিল হয়েছে সুপ্রিম কোর্টে। যার মধ্যে কিছু নাগরিকতা আইনের সমর্থনেও আবেদন করা হয়েছে।