Press "Enter" to skip to content

গুরুদ্বারাতে হামলার পর পাকিস্তানে শুরু হল শিখেদের উপর আক্রমণ, প্রকাশ্যে খুন এক শিখ যুবক

শেয়ার করুন -

পাকিস্তানের (Pakistan) পেশওয়ারে (Peshawar) এক শিখ যুবককে হত্যা করল দুষ্কৃতীরা। এখনো পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুযায়ী, মৃত জুবকের নাম পরভিন্দর সিং। আগামী সপ্তাহেই বিয়ে ছিল পরভিন্দর সিং (Parvinder Singh) এর। পুলিশের অনুযায়ী, পরভিন্দর নিজের বইয়ের প্রস্তুতির জন্য পেশওয়ারে এসেছিল, সেখানে তাঁকে কিছু অজ্ঞাত পরিচয় দুষ্কৃতীরা হত্যা করে দেয়।

পেশওয়ার পুলিশের অনুযায়ী, পরভিন্দর সিং সাংলার বাসিন্দা ছিলেন, আর সে নিজের বিয়ের কেনাকাটা করতে পেশওয়ারে এসেছিল।

আপনাদের জানিয়ে রাখি, এর আগে পাকিস্তানের সংখ্যাগুরু মুসলিমরা ননকানা সাহিব (Nankana Sahib) গুরুদ্বারাতে হামলা করে আর শিখেদের উপর পাথর ছুঁড়ে হামলা করে। এরপর এক শিখ কিশোরিকে অপহরণ করে ধর্মান্তকরণ করা পরিবারের নেতৃত্বে মুসলিমরা ননকানা সাহিব গুরুদ্বারা ভেঙে সেখানে মসজিদ বানানোর হুমকি দেয়, আর শিখেদের এলাকা ছাড়া করার হুমকি দেয়। এই ঘটনার প্রতিবাদে আর অভিযুক্তদের গ্রেফতারির দাবিতে ননকানা গুরুদ্বারা সাহিবের বাইরে শিখেরা বিক্ষোভ প্রদর্শন করে।

Brother Of Parvinder Singh

গুরুদ্বারা ননকানা সাহিব পাকিস্তানের লাহোর শহরের পাসেই অবস্থিত। ননকানা গুরুদ্বারা সাহিব শিখেদের জন্য খুবই পবিত্র স্থল। এটা শিখেদের প্রথম গুরু নানক দেবের জন্মস্থল বলে পরিচিত। খবর অনুযায়ী, শুক্রবার মুসলিমরা গুরুদ্বারায় হামলা করে আর শিখেদের উপর পাথর ছোঁড়ে।

ভারত ননকানা সাহিব গুরুদ্বারায় হামলার কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছে। ভারতের তরফ থেকে পাকিস্তানে থাকা সংখ্যালঘু শিখদের সুরক্ষা ব্যাবস্থা সুনিশ্চিত করার জন্য কড়া পদক্ষেপ নিতে বলা হয়েছে।