নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গ

বিজেপিতে যোগ না দিয়েই প্রার্থী! গেরুয়া শিবিরের হাটে হাড়ি ভাঙলেন কংগ্রেস নেত্রী শিখা মিত্র

কলকাতাঃ আজ দিল্লী থেকে ১৪৮ জন প্রার্থীর নাম ঘোষণা করল বিজেপি। আজকের এই প্রার্থী তালিকায় ছিল একাধিক চমক। ডাক্তার, বিজ্ঞানী, অভিনেতা, সংগীত শিল্পীদের আজকের প্রার্থী তালিকায় জায়গা দেওয়া হয়েছে। এছাড়াও আজ বিজেপিরর সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি মুকুল রায়কে প্রার্থী করা হয়েছে। ওনাকে কৃষ্ণনগর দক্ষিণ থেকে প্রার্থী করা হয়েছে।

রানাঘাটের বিজেপির সাংসদ জগন্নাথ সরকারকে শান্তিপুর থেকে প্রার্থী করা হয়েছে। আরেকদিকে, মমতার বাড়ি ভবানীপুরে প্রার্থী হয়েছেন অভিনেতা রুদ্রনীল ঘোষ। তবে সবার মধ্যে একজন প্রার্থীর নাম ঘোষণার পর মুখ পুড়েছে বিজেপির। সেই প্রার্থী হলেন শিখা মিত্র। প্রাক্তন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি তথা বরিষ্ঠ কংগ্রেস নেতা প্রয়াত সোমেন মিত্রর স্ত্রী হলেন শিখা মিত্র।

শিখা মিত্রকে চৌরঙ্গি আসন থেকে প্রার্থী করেছে বিজেপি। আর নাম ঘোষণা হওয়ার পরই বেঁকে বসেছেন স্বয়ং শিখা মিত্র। তিনি পরিস্কার বলে দিয়েছেন যে তিনি প্রার্থী হবেন না। তিনি এও বলেছেন যে, তিনি বিজেপিতে যোগও দেননি আর কংগ্রেসের সদস্যতাও ছাড়েন নি তাই প্রার্থী হওয়ার কোনও প্রশ্নই ওঠেনা।

বিজেপির প্রার্থী তালিকা ঘোষণা হওয়ার পরই শিখা মিত্রর পুত্র রোহন মিত্র নিজের প্রতিক্রিয়া দেন। তিনি বলেন, আমার মা নির্বাচনে লড়ছেন না। বিজেপি থেকে তো লড়বেনই না। আমাদের কাছ থেকে অনুমতি না নিয়েই আমার মায়ের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। শিখা মিত্রও জানান, আমি বিজেপির টিকিটে ভোটে দাঁড়াচ্ছি না।

বলে রাখি, ৭ মার্চ নরেন্দ্র মোদীর ব্রিগেড সমাবেশের পরে বিজেপির নেতা শুভেন্দু অধিকারী সোমেন মিত্রর বাড়ি গিয়ে শিখা এবং রোহন মিত্রর সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন। এরপর থেকে জল্পনা উঠেছিল যে শিখা মিত্র বিজেপিতে যোগদান করতে পারেন। এমনকি তিনি কংগ্রেস নেতৃত্বের উপর ক্ষোভও উগরে দিয়েছিলেন। কিন্তু তিনি বিজেপিতে যোগ দেন নি। আর বিজেপিতে যোগ দেওয়ার আগেই ওনাকে বিজেপি প্রার্থী ঘোষণা করে দেয় আজ।

Related Articles

Back to top button