আন্তর্জাতিকনতুন খবর

বোরখা নিষিদ্ধ করার পর এবার গোটা দেশে গোহত্যা নিষিদ্ধ করতে চলেছে শ্রীলঙ্কার সরকার

কলম্বোঃ শ্রীলঙ্কায় (Sri Lanka) খুব শীঘ্রই গোহত্যা নিষিদ্ধ হতে চলেছে। গত মাসে সংসদীয় নির্বাচনে দুই তৃতীয়াং ভোট পাওয়া শ্রীলঙ্কার শাসক দল গোটা দেশে গোহত্যা নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। যদিও গোমাংসের আমদানি আগের মতই জারি থাকবে। প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দ্রা রাজাপক্ষ (Mahinda Rajapaksa) মঙ্গলবার সাংসদদের সাথে এই ইস্যুতে চর্চা করেন। ক্যাবিনেট মুখপাত্র আর মিডিয়া মন্ত্রী কেহলিয়া রামবুকবেলার সুত্র থেকে খবর পেয়ে স্থানীয় মিডিয়া জানায় রাজপক্ষে একটি প্রস্তাব পেশ করেছে আর উনি বলেছেন যে, এবার দেশে গোহত্যা নিষিদ্ধ করার জন্য আইন আনতে পারেন।

জানিয়ে দিই, শ্রীলঙ্কার ৯৯ শতাংশ মানুষ আমিষভোজী। কিন্তু বহুসংখ্যক হিন্দু আর বৌদ্ধরা গোমাংস খায় না। প্রভাবশালী বৌদ্ধ ভিক্ষুর বেশিরভাগই রাজপক্ষের সমর্থক। আর তাঁরা সরকারের উপর চাপ সৃষ্টি করে গোহত্যায় নিষেধাজ্ঞা জারি করার চেষ্টা অনেকদিন ধরেই করছে। বহুসংখ্যক সিংহলা-বৌদ্ধ সম্প্রদায় মাহিন্দ্রা রাজাপক্ষকে পরিস্কার জানিয়ে দিয়েছে যে, ওনাকে ক্ষমতায় টিকে থাকার জন্য সংখ্যালঘুদের তোষণ করতে হবে না।

সংখ্যালঘু বৌদ্ধ আর হিন্দুদের সমর্থন থাকার কারণে শ্রীলঙ্কার সরকার দেশে গোহত্যা নিষিদ্ধ করতে চলেছে। তবে দেশে গোমাংসের আমদানিতে কোন খামতি পরবে না বলে জানিয়ে দিয়েছে সরকার। দুই বছর আগে হিন্দুরা বিশাল প্রতিবাদী মিছিল করে গোটা দেশে গোহত্যা নিষিদ্ধ করার দাবি তুলেছিল। ওই প্রতিবাদী মিছিলে শ্রীলঙ্কার সংখ্যালঘু বৌদ্ধরাও অংশ নিয়েছিলেন। এবার তাঁদের দাবি পূরণ হতে চলেছে। জানিয়ে দিই, এর আগে শ্রীলঙ্কায় ইস্টারের দিন চার্চে হামলার পর গোটা দেশে বোরখা নিষিদ্ধ করা হয়েছিল।

Back to top button
Close