টাকা পয়সানতুন খবরব্যবসাভারতবর্ষ

মাত্র ৫ হাজার টাকায় শুরু করুন এই ব্যবসা, সরকারি সাহায্যে হবে অবিশ্বাস্য আয়

কলকাতাঃ করোনা কালের পর ফের একবার নিজেদের অর্থনৈতিক পরিস্থিতিকে ট্রাকে ফেরাতে অনেকেই নতুন কোন ব্যবসার সন্ধান করতে শুরু করেছেন। আজ আপনাকে এমন একটি ব্যবসার কথা বলব যা অত্যন্ত কম খরচায় শুরু করতে পারবেন আপনি। শুধু তাই নয় এক্ষেত্রে যেমন একদিকে রয়েছে সরকারি সাহায্য তেমনি আপনার তৈরি জিনিস বিক্রির জন্যও আপনাকে খুব বেশি চিন্তা করতে হবে না।

আজকাল অনেকেই প্লাস্টিক বা কাগজের কাপে চা খেতে পছন্দ করেন না। এমনকি সরকারি তরফেও অনেক জায়গায় মাটির ভাঁড়কে বেশি উৎসাহিত করা হচ্ছে। ভারতবাসী স্বাভাবিকভাবেই চা প্রেমী, আর কাগজ কিম্বা প্লাস্টিকের কাপের তুলনায় মাটির ভাঁড়ে চা খাওয়ার আমেজই যে আলাদা এ নিয়ে কোন সন্দেহ নেই। মাটির ভাঁড়ের এই জনপ্রিয়তার কথা মাথায় রেখে আপনিও বিভিন্ন ধরনের মাটির ভাঁড় তৈরীর ব্যবসা শুরু করতে পারেন।

জানিয়ে রাখি এক্ষেত্রে কেন্দ্র সরকারের তরফ থেকেও আপনি বড় সাহায্য পেতে পারেন। কেন্দ্রীয় সরকার সারা দেশে কুমোরদের ব্যবসাকে আরও উন্নত করার জন্য বৈদ্যুতিক চাকা প্রদান করা শুরু করেছে । যার মাধ্যমে মাটির হাড়ি সহ বিভিন্ন ধরনের মাটির ভাঁড় বানাতে পারবেন আপনি। জানিয়ে রাখি শুধু সাধারণ চায়ের দোকান নয় এখন বড় বড় ক্যাফে এবং রেস্তোরাঁতেও কারুকার্য খচিত মাটির ভাঁড় ব্যবহার হচ্ছে।

সাধারণভাবে ১০০ চায়ের ভাঁড়ের পাইকারি দাম ৫০ টাকা। একইভাবে লস্যির মাটির ভাঁড়ের ১০০ টির দাম ১৫০ টাকা। বিয়ে বাড়ি এবং উৎসবের সময়ের চাহিদা আরও বেড়ে যায়। শুধু তাই নয় আপনি যদি কারুকার্যখচিত ভাঁড় তৈরি করতে পারেন, তবে তার দাম আরও বেশি। এক্ষেত্রে জানিয়ে রাখি মাত্র ৫ হাজার টাকা বিনিয়োগ করে এই ব্যবসা সহজে শুরু করতে পারেন আপনি।

Related Articles

Back to top button