নতুন খবরপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

বাঙালীদের হক মেরে বহিরাগতদের রাজ্যসভায় পাঠাচ্ছে বাংলার মেয়ে, বিস্ফোরক শুভেন্দু অধিকারী

কলকাতাঃ বহিরাগত বলে এতদিন ধরে বিজেপিকে খোঁচা দেওয়া তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (Mamata Banerjee) এখন বহিরাগতদেরই জামাই আদর করছেন, এমনটাই অভিযোগ বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর (Suvendu Adhikari)। একুশের ভোটের আগে যেই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, অভিষেক ও বাকি তৃণমূল নেতারা বিজেপিকে বহিরাগত তকমা দিয়ে খেদাও অভিযানে নেমেছিলেন, এখন তাঁরাই বহিরাগতদের মাথায় তুলছেন। আর এবার সেই বহিরাগত ইস্যুতে তৃণমূলকেই বিঁধলেন শুভেন্দু অধিকারী।

উল্লেখ্য, এদিন তৃণমূলের প্রাক্তন রাজ্যসভার সাংসদ অর্পিতা ঘোষের ছেড়ে যাওয়া আসনে প্রার্থী করা হয়েছে সদ্য তৃণমূলে যোগ দেওয়ার গোয়ার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী লুইজিনহো ফেলারিওকে। এর আগে মানস ভুঁইয়ার ছেড়ে যাওয়া আসনে অসমের কংগ্রেস নেত্রী সুস্মিতাদেবকে প্রার্থী করেছিল তৃণমূল। আর এবার এই দুই’কে নিয়েই শাসককে বিঁধলেন শুভেন্দু অধিকারী।

এদিন বিজেপির বিধায়ক শুভেন্দু অধিকারী একটি ট্যুইটের মাধ্যমে লিখেছেন, ‘পশ্চিমবঙ্গের রাজ্যসভার আসন বহিরাগতদের হাতে তুলে দিয়ে বাংলার মেয়ে তা নষ্ট করছেন। প্রথমে সুস্মিতা দেব, পরে লুইজিনহো ফেলারিও। এই বঞ্চনার প্রতি কি বাঙালির প্রতিক্রিয়া দেখানো উচিত নয়? আসাম ও গোয়ায় তৃণমূলের টিকিটে নির্বাচিত হওয়ার সুযোগ না থাকলে বাংলাকে কেন এর মূল্য চোকাবে?”

উল্লেখ্য, একুশের বিধান সভা নির্বাচনের প্রচারে গিয়ে প্রতিটি সভা থেকেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বিজেপিকে বহিরাগত বলে আক্রমণ করেছিলেন। এমনকি তিনি এও বলেছিলেন যে, উত্তর প্রদেশ, বিহার থেকে গুন্ডা ভাড়া করে আনছে বিজেপি। আবার সেই মুখ্যমন্ত্রীই কিছুদিন আগে গোয়ার সফরে গিয়ে বলেছেন, তিনি কোনও বহিরাগত নন। তিনি বাংলার মতোই গোয়ারও ভূমিকন্যা, ভারতের ভূমিকন্যা।

Related Articles

Back to top button