Press "Enter" to skip to content

যারা ৯ মিনিটের জন্য লাইট নেভাবে তাদের বাড়ি ও ঠিকানা চিহ্নিত করে রাখা হবে: হুমকি দিল কিছু তৃণমূল সমর্থক

শেয়ার করুন -

একদিকে যখন পুরো দেশ এক হয়ে করোনা মহামারির বিরুদ্ধে লড়াইতে নেমেছে তখন বাংলায় এ নিয়ে রাজনীতি শুরু হয়েছে। কিছু উন্মাদী মোদী বিরোধিতা দেখাতে গিয়ে জনতাকে হুমকি দিতে মাঠে নেমে পড়েছে। ক্ষমতাধারী দল তৃণমূল কংগ্রেসের উপর অভিযোগ উঠেছে যে রবিবার দিন সেই সমস্ত বাড়িকে নাকি চিহ্নিত করা হবে যারা প্রধানমন্ত্রী মোদীর কথায় বাড়ির লাইট নিভিয়ে প্রদীপ জ্বালাবেন। রবিবার ৯ টেয় প্রধানমন্ত্রী মোদীর ডাকে পুরো দেশের জনতা বাড়ির লাইট বন্ধ করে একতা দেখানোর জন্য ৯ মিনিটের জন্য প্রদীপ জ্বালিয়ে রাখবেন।

কিন্তু তৃণমূল কংগ্রেসের সাথে জড়িত প্রসূন ভৌমিকের পোস্ট নিয়ে একটা বড় অভিযোগ উঠেছে। প্রসূন ভৌমিক তার ফেসবুক পোস্টে লিখেছেন, ” যারা রবিবার দিন লাইট নেভাবে তাদের বাড়ি দরজায় চিহ্নিত করা হবে। নাহলে ঠিকানা গুলো তালিকাই উঠবেই…” এই পোস্টের স্ক্রিন শট বেশ ভাইরাল হয়েছে এবং প্রসূন ভৌমিক তৃণমূলের লোক বলে দাবি করা হয়েছে। লেখার শেষ জয় বাংলা লেখা হয়েছে যা নিয়েও বেশ চর্চা চলছে।

 

জানিয়ে দি, প্রসূন ভৌমিক বাংলার থিয়েটার জগতের সাথে যুক্ত এবং একজন কবিও। অনেকে প্রসূন ভৌমিককে একজন বুদ্ধিজীবী বলেও মনে করেন। একই সাথে এই হুমকি দেওয়া ব্যাক্তি তৃণমূল কংগ্রেসের সাথে যুক্ত বলেও অনেকে জানিয়েছেন। এখন উনি সোশ্যাল মিডিয়ায় বাংলার জনতাকে হুমকি দিয়েছেন যে যারা রাত ৯ টেয় আলো নেভাবেন তাদের চিহ্নিত করা হবে। এখন এই ব্যাক্তি তৃণমূল কংগ্রেসের সাথে যুক্ত হোক বা না হোক জনতাকে এইভাবে হুমকি দেওয়া যে শুধুমাত্র মোদী বিরোধিতার জন্য তা স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে। অনেকে বলেছেন যেভাবে ১৯৩৩ সালে নাৎসিরা ইহুদিদের মতো চিহ্নিত করতো সেইভাবে এই উন্মাদীরাও বাংলায় হিংসা ছড়ানোর চেষ্টা চালাচ্ছে।

প্রসূন ভৌমিক ছাড়াও আরো বেশকিছু ফেসবুক একাউন্ট থেকে এমন পোস্ট করা হয়েছে। একদিকে যখন পুরো দেশ রাজনীতি ভুলে একে উপরের হাত মিলিয়ে করোনা মহামারির বিরুদ্ধে লড়াইতে নেমেছে তখন কিছু উন্মাদী জনতাকে হুমকি দিয়ে রাজনীতি করতে ব্যাস্ত।